নিজস্ব প্রতিনিধি, বারাকপুর: কংগ্রেস নেতা ও প্রাক্তন সাংবাদিক সন্ময় বন্দ্যোপাধ্যায়কে গ্রেফতার করল পুরুলিয়া জেলা পুলিশ। পানিহাটির বাড়ি থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে তার পরিবারের সদস্যদের অভিযোগ। সূত্রের খবর, তার বিরুদ্ধে সাইবার ক্রাইমের অভিযোগ রয়েছে। একাধিক অভিযোগ রয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

সম্প্রতি সন্ময় বাবু রাজ্য সরকার ও মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে বেশ কিছু পোষ্ট করেছিলেন সোশ্যাল মিডিয়ায় । সেই অভিযোগেই তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে মনে করা হচ্ছে। তবে সম্ময়বাবুর পরিবারের সদস্যরা এই ঘটনায় খড়দহ থানায় অপহরণের অভিযোগ দায়ের করেছেন। তাদের পরিবারের সদস্যদের পালটা অভিযোগ, যারা সম্ময়বাবুকে নিয়ে গিয়েছে তারা কেউ পুলিশের পোশাকে ছিল না। এই ঘটনার পিছনে তৃণমূলের চক্রান্ত আছে বলে অভিযোগ তাদের।

অন্যদিকে এই ঘটনা জানতে পেরেই রাজ্য প্রশাসনকে কাঠগড়ায় দাঁড় করিয়েছেন কংগ্রেস সাংসদ অধীর চৌধুরী। তিনি বলেন, “যে কায়দায় সন্ময়বাবুকে গ্রেফতার করা হয়েছে তার নিন্দার ভাষা নেই। পুলিশকে ধিক্কার।” উত্তর ২৪ পরগনার পানিহাটি পুরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা সন্ময় বন্দ্যোপাধ্যায়। তিনি পানিহাটি পুরসভার প্রাক্তন কংগ্রেস কাউন্সিলরও ছিলেন ।

অন্যদিকে কংগ্রেসের অভিযোগ, পুলিশের সঙ্গে তৃণমূলের চেনা দুষ্কৃতীরা সন্ময় বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপর হামলা চালায়। তাঁর পরিবারের লোকেরা খড়দহ থানায় তৃণমূলের লোকদের বিরুদ্ধে এফআইআর করতে গেলে সেটাও নেওয়া হয়নি। এই ঘটনার প্রতিবাদে কাল শুক্রবার খড়দহ থানায় কংগ্রেস কর্মীরা বিক্ষোভ দেখাবে বলে কংগ্রেসের তরফে জানানো হয়েছে।