প্রতীতি ঘোষ, বারাকপুর : প্রকাশ্য রাস্তায় বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংয়ের গাড়ির কনভয় দাঁড় করিয়ে দেওয়ার অভিযোগ। শুধু তাই নয়, ওই কনভয়ের মধ্যে পিছনের গাড়িতে থাকা এক বিজেপি কর্মীকে গাড়ির দরজা জোর করে খুলে গ্রেফতার করে নিয়ে গেল বারাকপুর পুলিশ কমিশনারেটের পুলিশ। গ্রেফতার হওয়া বিজেপি কর্মীর নাম বিট্টু জয়সয়াল। সে অর্জুন অনুগামী বলেই পরিচিত। তার বাড়ি উত্তর ২৪ পরগনার হালিশহর এলাকায় বলে জানা গিয়েছে।

গোটা ঘটনায় তীব্র উত্তেজনা ছড়ায় বারাকপুর চিড়িয়ামোড় এলাকায়। এই ঘটনার জেরে বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংয়ের গাড়ির কনভয় দাড়িয়ে যায়। অর্জুন বাবু গাড়ি থেকে নেমে পড়েন। ঘটনার জেরে সাময়িক যানজট সৃষ্টি হয় চিড়িয়ামোড় এলাকায়। ঘটনার সময় সাদা পোশাকে থাকা জয়েন্ট সিপি অজয় ঠাকুর ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলেন। এই ঘটনায় জয়েন্ট সিপি অজয় ঠাকুরের সঙ্গে প্রকাশ্য রাস্তায় তর্কাতর্কি শুরু হয় বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিংয়ের।

পুলিশের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, আইন শৃঙ্খলা ভঙ্গের অপরাধে গ্রেফতার করা হয়েছে বিট্টু সিংকে। এদিকে এই ঘটনাতে নিজের ক্ষোভ উগরে দেন বিজেপি সাংসদ অর্জুন সিং।

তিনি বলেন, “হালিশহরে সংঘর্ষের ঘটনায় আমি সহ ১৩ জনের বিরুদ্ধে পুলিশ ও এক তৃণমূল নেতা মামলা করেছিল। সেই মামলা থেকে আমরা ১৩ জন জামিন পাই। বারাকপুর কোর্ট থেকে যখন বাড়ি ফিরছিলাম, তখন বারাকপুর চিড়িয়ামোড় এলাকায় আমাদের কনভয় আটকে দেয় পুলিশ। আমার গাড়ির সামনে অন্য গাড়ি দাঁড় করিয়ে দেয়। পিছনের গাড়ির ভিতর থেকে বিজেপির একনিষ্ট কর্মী বিট্টু জয়সোয়ালকে পুলিশ তুলে নিয়ে যায়।

ওর বিরুদ্ধে কি মামলা আছে কিছুই বলে নি। জোর করে ওকে নিয়ে গেল। এভাবেই আমাদের উপর পুলিশ হেনস্থা করছে। এর আগে ওর বাড়িতে পুলিশের উপস্থিতিতে ২০০ তৃণমূলের গুন্ডা হামলা করেছিল। তখন পাড়ার লোকরা তাড়া করে ওই গুন্ডা বাহিনীকে হটিয়ে দেয়। আজকে সাদা পোশাকে পুলিশ এসে আমার গাড়ি আটকে প্রকাশ্য রাস্তার উপর থেকে আমার দলের কর্মীকে তুলে নিয়ে চলে গেল। মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশে বিজেপি কর্মীদের উপর এরকম হেনস্থা করা হচ্ছে ।”

সাংসদ অর্জুন সিংয়ের আইনজীবী রবীন্দ্রনাথ ভট্টাচার্য্য বলেন, “সম্পূর্ণ আইন বিরুদ্ধ কাজ করেছে পুলিশ। এভাবে রাস্তা থেকে কাউকে গ্রেফতার করতে গেলে তার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আছে, সেই অভিযোগ পত্র দেখতে হয় । কিন্তু পুলিশ কারুর সঙ্গে কোন কথা না বলে বিজেপি কর্মী বিট্টু জয়সয়ালকে তুলে নিয়ে গেল।”

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ