আমাস্টারডাম: ফুটবলকে গুডবাই জানালেন নেদারল্যান্ডসের কিংবদন্তি ফুটবলার আর্জেন রবেন৷ ৩৫ বছর বয়সে কেরিয়ারে ইতি টানলেন তিনি৷ জার্মানি জায়ান্ট বায়ার্ন মিউনিখে ১০ বছরের কেরিয়ার শেষ করে রবেন বলেন, ‘কোনও সন্দেহ নেই কেরিয়ারে এটা আমার সবচেয়ে কঠিন সিদ্ধান্ত৷ আমার হৃদয় বলছে ইয়েস, কিন্তু শরীর বলছে নো৷’

৯৬টি আন্তর্জাতিক ম্যাচে ৩৭টি গোল করেছে নেদারল্যান্ডসের এই কিংবদন্তি ফুটবলার৷ দক্ষিণ আফ্রিকার মাটিতে ২০১০ বিশ্বকাপ নেদারল্যান্ডসকে ফাইনালে তুললে বড় ভূমিকা নিয়েছিলেন রবেন৷ পাশাপাশি ক্লাব ফুটবলেও দারুণ সফলে এই ডাচ ফুটবলার৷ জোসে মোরিনহোর কোচিংয়ে চেলসির হয়ে ২০০৫ ও ২০০৬ সালে প্রিমিয়র লিগ খেতাব জিতেছেন রবেন৷ রিয়েল মাদ্রিদের হয়ে জিতেছেন লা লিগা৷

তবে চেলসি ও রিয়েল মাদ্রিদে খেলেলেও ব্রায়ার্ন ফুটবলার হিসেবেই রবেনকে চেনে ফুটবলবিশ্ব৷ ৮ বার জিতেছেন বুন্দেশলিগা খেতাব৷ পাঁচবার জিতেছেন জার্মান কাপ৷ এছাড়া বায়ার্নের হয়েই ২০১৩ চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিতেছেন রবেন৷ জার্মানির এই ক্লাবের হয়ে ৩০৯টি ম্যাচে ১৪৪টি গোল করেছেন ডাচ কিংবদন্তি৷

এক বিবৃতিতে রবেন জানান, ‘খেলার প্রতি আমার প্যাশন এখনও যা রয়েছে, তাতে আমি আরও কিছুদিন খেলতে পারতাম৷ কিন্তু বাস্তবটা হল আমার কোনও আশা নেই৷ আমি ১৬ বছরের তরুণ নয়৷’ গত মরশুমে বুন্দেশলিগায় চোট-আঘাতে জেরবার ছিলেন রবেন৷ ২০১৭ সালের অক্টোবরে আন্তর্জাতিক ফুটবলকে বিদায় জানিয়েছেন তিনি৷ সুইডেনের বিরুদ্ধে জোড়া গোল করে নেদারল্যান্ডসকে জিতিয়ে সরে দাঁড়ান রবেন৷

তিনি আরও বলেন, ‘দেশের হয়ে খেলার মতো ভালো জিনিস আর হয় না৷ শেষ পর্যন্ত ৯৬টি ম্যাচ খেলার পর গুডবাই জানিয়েছে৷ আমি ছ’টি টুর্নামেন্টে অংশ নিয়েছিলাম৷ গত বছর দলকে নেতৃত্বও দিই৷ সব মিলিয়ে এই স্মরণীয় সময়টাই আমার সম্পদ৷’