নিউজ ডেস্ক , কলকাতা: বিতর্কি তৈরি করায় তার জুড়ি মেলা ভার৷ লোকসবা ভোটের আগেই বিজেপিতে পা রাখা অধ্যাপক অনুপম হাজরা তৃণমূল থেকে বহিস্কৃতই হয়েছিলেন বিতর্কিত ফেসবুক পোস্টের জন্য৷ কিন্তু তাতে কী আদৌও দমেছেন অনুপম? মনে তো হয় না৷ মঙ্গলবার মুনমুন ও রাইমা সেনের সঙ্গে আড্ডা দেওয়ার একটি ছবি ফেসবুকে পোস্ট করে অনুপম লেখেন বিজেপির জন্য আরও সুখবর আসছে৷

সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে আসানসোলে তৃণমূলের প্রার্থী ছিলেন মুনমুন৷ এই কেন্দ্রে বিজেপি প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয়র কাছে পরাজিত হয়েছেন মুনমুন৷ তবে নির্বাচন চলাকালীন, ‘‘আমার মায়ের আত্মার শান্তির জন্য আমাকে ভোট দিন’’ কিংবা দেরিতে ‘বেড টি’ দেওয়ার মতো কথা বলে সোশ্যাল মিডিয়াতে ট্রোলড হয়েছেন মুনমুন৷ ভোটের পরই এহেন মুনমুন সেনের সঙ্গে অনুপমের ছবি পোস্ট করাকে ইঙ্গিতবাহীই মনে কপরে রাজনৈতিক মহল৷

সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে রাজ্যে বিজেপি চমকপ্রদ রেজাল্ট করেছে৷ এরপরই তৃণমূল ছেড়ে বিজেপিতে যাওয়ার ধূম পড়ে গেছে৷ মঙ্গলবারই তৃণমূলের প্রাক্তন বিধায়ক এবং মুকুল রায়ের ছেলে বিজেপিতে যোগ দিয়েছেন৷ শুধু শুভ্রাংশু নয় সঙ্গে আরও দুজন বিধায়ক এবং ৫০ জন তৃণমূল কাউন্সিলর বিজেপি-তে যোগ দিয়েছেন৷ স্বাভাবিকভাবেই এদিনই যাদবপুরের বিজেপি প্রার্থী অনুপম হাজরার ফেসবুক পোস্টে মুনমুন ও রাইমাকে নিয়ে ইঙ্গিত দেখে জল্পনা তৈরি হয়৷

সুচিত্রা সেনের মেয়ে এবং তৃণমূলের প্রাক্তন এমপি মুনমুন এবং তার মেয়ে রাইমার সঙ্গে ছবি ফেসবুকে পোস্ট করে অনুপম লেখেন,“অনেক দিন পরে আমাদের টিপিক্যাল আড্ডা৷ সঙ্গে মুনমুনদি এবং রিয়া৷ বিজেপির জন্য আরও সুখবর অপেক্ষা করছে৷” অনুপমের এই পোস্টটি সঙ্গে সঙ্গেই সোশ্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়৷ অবাকভাবে কিছুক্ষণের মধ্যেই পোস্টটি ডিলিট করে দেন অনুপম৷

তবে এখানেই থেমে না থেকে কিছুক্ষণ পর আবারও একটি ফেসবুক পোস্ট করেন অনুপম৷ সেখানে তিনি লেখেন, ‘‘অন্তত ২ জন প্রাক্তন এমপি, ৭জন এমএলএ, ৩০জন তৃণমূল কাউন্সিলর এবং ছজন জনপ্রিয় টলিউড সেলেব বিজেপিতে আসছে আগামী একমাসের মধ্যে৷’’ অনুপমের এই পোস্ট মুনমুন রাইমা সহ অন্য আরও চার টলিউড সেলেবের বিজেপি যোগের ইঙ্গিত দিচ্ছে বলেই মনে করছে রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের একাংশ৷