কলকাতা: বারেবারে খবরের শিরোনামে উঠে আসছে যাদবপুর। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয়কে হেনস্থার অভিযোগে যাদবপুর নিয়ে কম হইচই হয়নি। এবার উত্তর ফাঁসের অভিযোগে ফের একবার চাঞ্চল্য ছড়াল যাদবপুরে।

এই বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংবাদিকতা ও মাস কমিউনিকেশন বিভাগের প্রশ্ন ফাঁস ও পক্ষপাতিত্ব করে খাতা দেখার অভিযোগ উঠেছে অভ্র সেন নামে এক শিক্ষক তথা গবেষকের বিরুদ্ধে।

অভিযোগ ওই গবেষক ছাত্রদের পরীক্ষার খাতা দেখেন ও ক্লাস নেন, ছাত্রদের দাবি, তাঁদের কাছে সোশ্যাল মিডিয়ার স্ক্রিনশট আছে। যেখানে দেখা যাচ্ছে অভ্র সেন নাকি লিখেছেন, ছাত্র আন্দোলন করেছে বলে এক ছাত্রের নম্বর তিনি ‘চেপে’ দেবেন।

এখানে যে ছাত্রের নম্বর চেপে দেওয়ার কথা উঠেছে, সেই ছাত্রের নাম জয়দীপ দাস। তাঁর অভিযোগ, ওই গবেষকের বিরুদ্ধে এর আগেও এমন পক্ষপাতিত্বের অভিযোগ উঠেছে। কিন্তু সে বার কোনও পোক্ত প্রমাণ ছিল না। এ বার প্রমাণ থাকায় তাঁর বিরুদ্ধে তদন্তের দাবি জানাচ্ছি। “

অন্য দিকে অভ্র বাবুর বক্তব্য, তিনি মাস তিনেক আগে বিজেপিতে যোগদান করেছেন। সেই কারণেই তাঁর বিরুদ্ধে এই ষড়যন্ত্র চলছে। তিনি জানিয়েছেন, এর বিরুদ্ধে পুলিশে যাবেন তিনি।

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের তরফে জানানো হয়েছে, এই অভিযোগের তাঁদের কানেও গিয়েছে। ঘটনায় তদন্তের ব্যবস্থা করেছে বিশ্ববিদ্যালয়। যতদিন না তদন্ত সম্পূর্ন হচ্ছে, ততদিন ওই শিক্ষককে বিশ্ববিদ্যালয়ে আসতে বারণ করেছে কর্তৃপক্ষ।