হলদিয়া: হলদিয়ায় ৩০ বছরের একটি প্রাচীন রাবার গাছ ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের জেরে ভেঙে পড়েছে৷ তাকে বাঁচাতে এগিয়ে এল হলদিয়া পুরসভা৷

শিল্প শহর হলদিয়ায় যানবাহন ও কারখানার ধোঁয়ায় ক্রমেই বেড়ে চলেছে এই শহরে দূষণের মাত্রা৷ দূষণের মাত্রা কমানোর জন্য রাজ্যের মন্ত্রী তথা হলদিয়া উন্নয়ন পর্ষদের চেয়ারম্যান শুভেন্দু অধিকারী সর্বস্তরের মানুষকে এগিয়ে আসার ডাক দিয়েছে৷ দূষণ রোধে প্রচুর পরিমানে গাছ লাগানোর কথাও বলেন তিনি৷

সম্প্রতি ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের জেরে রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে ব্যপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। ভেঙ্গে পড়েছে অনেক কাচা বাড়ি ও গাছপালা৷ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ক্ষতিগ্রস্ত মানুষের পাশে দাঁড়ানোর কথা বলেছেন৷ তেমনি ভেঙে পড়া গাছপালাকে বাঁচানোর কথা বলেছেন তিনি। মুখ্যমন্ত্রীর এই উদ্যোগে সামিল হলেন, হলদিয়া পুরসভার ২৯ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর তথা হলদিয়া পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান দেবপ্রসাদ মন্ডল ও স্থানীয় মানুষ৷ী

এলাকার একটি ৩০ বছরের প্রাচীন রাবার গাছ ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের জেরে ভেঙ্গে পরেছে৷ পাশাপাশি অনেক গাছের গোড়া থেকে মাটি আলগা হয়ে গিয়েছে। কিন্তু প্রাচীন রাবার গাছটিকে বাঁচানোর জন্য গাছের গোড়ায় মাটি ও জল দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়৷ উদ্যোগতাদের আশা তারা প্রাচীন গাছটিকে আবার আগের মতো সুস্থ করে তুলতে পারবেন।

এদিন অত্যাধুনিক দু’টি মেশিনের মাধ্যমে অন্য জায়গা থেকে মাটি নিয়ে আসা হয়৷ এবং প্রাচীন গাছটির গোড়ায় দেওয়া হয়৷ পাশাপাশি গাছের গোড়ায় পর্যাপ্ত পরিমাণে জল দেওয়া হয়৷ হলদিয়া পুরসভার প্রাক্তন চেয়ারম্যান দেবপ্রসাদ মন্ডল জানান, এলাকায় দূষণ মুক্ত করার জন্য নতুন নতুন গাছ লাগানোর পাশাপাশি পুরানো গাছকে কাটতে দিচ্ছি না আমরা। হলদিয়াকে সবুজায়নে ভরিয়ে তুলতে আমাদের নান রকম উদ্যোগ জারি থাকবে।