মুম্বই: প্রথমে আকাশ, তারপর ঈশা। অম্বানী পরিবারে উৎসবের রেশ। একে একে এনগেজমেন্ট সারলেন মুকেশ অম্বানীর দুই ছেলে-মেয়ে। আকাশ ও শ্লোকা মেহতার এনগেজমেন্টের পরই ঈশা অম্বানী ও আনন্দ পীরামলের এনগেজমেন্ট পার্টি হল ধুমধাম করে। অম্বানীদের ‘অন্তিলিয়া’য় খুশির রেশ কাটছে না। এরই মাঝে বোধহয় আরও একটা খুশির খবর আসতে চলেছেল এবার পালা অনন্ত অম্বানীর।

আকাশ ও ঈশার পার্টনারদের কথা এর আগে কোনোদিনই শোনা যায়নি। আনুষ্ঠানিকভাবে অম্বানী পরিবার জানানোর পরই তাদের চিনেছে সাধারণ মানুষ। তবে এবার এক পত্রিকায় দেখা গেল মুকেশ অম্বানীর ছোট ছেলে অনন্তের সঙ্গে রাধিকা মার্চেন্টের ছবি। Hello নামের একটি ম্যাগাজিনে ওই ছবি প্রকাশিত হয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই ছবিটি ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

সম্প্রতি ঈশার এনগেজমেন্ট পার্টি উপলক্ষে সেজে উঠেছিল ‘আন্তিলিয়া’। বলিউডের তাবড় অভিনেতা থেকে স্পোর্টসপার্সন, সবাই উপস্থিত ছিলেন সেখানে। তার আগে মহাবালেশ্বরের মন্দিরে ঈশাকে প্রপোজ করেন তাঁর দীর্ঘদিনের বন্ধু আনন্দ। এবছরের শেষেই স্বাতী ও অজয় পীরামলের ছেলে আনন্দের সঙ্গে ঈশার বিয়ে হবে বলে জানা গিয়েছে। পীরামল রিয়েলটির প্রতিষ্ঠাতা এই আনন্দ পীরামল। তিনি পীরামল গ্রুপের এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টরও। ইন্ডিয়ান মার্চেন্ট চেম্বার (ইউথ উইং)-এর সর্বকনিষ্ঠ প্রেসিডেন্টও ছিলেন আনন্দ।

গত ২৪ মার্চ আংটি বদল হয়েছে আকাশ অম্বানি ও শ্লোকা মেহতার। ২৬ মার্চ জাঁকজমক করে হয় পার্টি। ডিসেম্বরেই বিয়ে হবে আকাশের। স্বাভাবিকভাবেই অম্বানি পরিবারে এখন খুশির হাওয়া। তবে অনন্ত অম্বানীর বিয়ের খবর এখনও প্রকাশ্যে আনেনি অম্বানী পরিবার।

তবে শোনা যাচ্ছে, গোপনে এক অনুষ্ঠানে আংটি বদল সেরেছেন অনন্ত ও রাধিকা। ব্রাউন ইউনিভার্সিটি থেকে পড়াশোনা করেছেন অনন্ত। বিপুল ওজন কমিয়ে সাড়া ফেলে দিয়েছিলেন এই অম্বানী পরিবারের ছোট ছেলে।