জয়পুর: মাইলের পর মাইল জুড়ে মরুভূমি আর বালি। আর তার মাঝেই আচমকা মিলল এক নদী। বহু বহু বছর আগে ছিল সেই নদী। সেটাই উদ্ধার করলেন প্রত্নতত্ত্ববিদরা।

জানা গিয়েছে, ১,৭২,০০০ বছর থর মরুভূমির উপর দিয়ে বয়ে যেত নদী। আর সেইখানেই নাকি গড়ে উঠেছিল এক প্রাচীন সভ্যতা।

বিকানেরের কাছে থর মরুভূমির মধ্যভাগে নাল পাথর খাদানের বালি এবং পাথরের ভাঁজে ওই প্রাচীন নদীর সন্ধান পাওয়া গিয়েছে। জার্মানি, তামিল নাড়ু এবং আইআইএসআর কলকাতার গবেষকদের নিয়ে গঠিত একটি দল সন্ধান চালাতে গিয়ে এই নদী উদ্ধার করেছে।

কোয়াটেনারি সায়েন্স রিভিউস্‌ নামে জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে ওই রিপোর্ট। তাঁরা বলছেন, প্রস্তর যুগে থর মরুর চেহারা আজকের মতো ছিল না। এখনকার বিকানেরের কাছ দিয়ে সেসময় বয়ে চলা ওই নদী বর্তমান নদীর থেকে প্রায় ২০০ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত ছিল।

জার্মান গবেষক জিমবব ব্লিঙ্কহর্ন জানিয়েছেন, প্রাগৈতিহাসিক বেশি কিছু নদীর অস্বিত্ব থরে তাঁরা খুঁজে পেলেও সেগুলি ঠিক কোথায় কোথায় ছিল তা এখনও জানা যায় না। তামিল গবেষক হেমা অচ্যুতানের মতে, ওই প্রাগৈতিহাসিক নদীগুলি ঠিক কতদিন আগে থরের উপর দিয়ে বইত তাও জানা যায়নি।

গবেষকদের মতে, যে সময়ে এই নদী থরে সক্রিয় ছিল, সেসময়ই আফ্রিকা থেকে ভারতে মানুষে এসে বসতি গড়েছিল।

রিপোর্টে গবেষকরা বলছেন, ১,৭২,০০০-১,৪০,০০০ বছর পর্যন্ত আজকের নাল পাথর খাদানের উপর দিয়ে বেশ বড় নদী বইত। প্রায় ৭৮,০০০ বছর পর্যন্ত ওই নদীর অস্বিত্বের প্রমাণ মিলেছে। কিন্তু ২৬,০০০ বছরের পর থেকেই নদীখাতের অস্বিত্ব বিলীন হতে শুরু করেছিল।

দেশে এবং বিদেশের একাধিক সংবাদমাধ্যমে টানা দু'দশক ধরে কাজ করেছেন । বাংলাদেশ থেকে মুখোমুখি নবনীতা চৌধুরী I