স্টাফ রিপোর্টার, বারাসত : করোনা সংক্রমণ শরীরে বাসা বেঁধেছে, এই আতঙ্কে বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করলেন এক বৃদ্ধ। মর্মান্তিক এই ঘটনাটি ঘটেছে বারাসতে। সূত্রের খবর, মৃত ওই বৃদ্ধের নাম নিতাই ঘোষ চৌধুরী (৮৭) । তাঁর বাড়ি উত্তর ২৪ পরগনা জেলার বারাসাত থানার নবপল্লি বলাকা আবাসন এলাকায় । এদিন ভোরবেলায় নিজের ঘরেই ওই বৃদ্ধ বিষ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করেন। বিষ খেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়লে দ্রুত তাঁকে বারাসাত জেলা হাসপাতালে নিয়ে আসেন পরিবারের সদস্যরা ।

হাসপাতালে আনার পরই চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষণা করেন । জানা গিয়েছে, নিতাই ঘোষ চৌধুরী দীর্ঘদিনের সিপিএম কর্মী ছিলেন । তিনি বিষ খাওয়ার আগে একটি সুইসাইড নোটও লিখে রেখে যান । সিপিএমের ছাপানো প্যাডে ওই সুইসাইড নোট বাংলায় লেখেন ওই বৃদ্ধ। বৃদ্ধের দুই ছেলে বর্তমান রয়েছেন। সুইসাইড নোট অনুসারে, ওই বৃদ্ধ লেখেন তার ধারনা তিনি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণে সংক্রমিত হয়েছেন। তাই তিনি বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন।

শুক্রবারই বারাসাত জেলা হাসপাতালের মর্গে ওই বৃদ্ধের দেহ ময়না তদন্ত করা হয় । এই,বিষয়ে মৃতের বড় ছেলে তিলক ঘোষ চৌধুরী বলেন, “বাবার বয়সজনিত সমস্যা ছিল। তবে বাবার অন্য কোনও বড় অসুখ ছিল না । টিভিতে খবরে সারাক্ষণ করোনা দেখে উনি আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। সেই কারনে, উনি নিজেই এই ঘটনা ঘটান। বারাসাত থানার পুলিশ গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। মৃতের পরিবারের সদস্যদের জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ । এই ঘটনায় বারাসাত নবপল্লী এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে ।