জয়পুর: রাজস্থানের মন্ত্রীর নিশানায় অমিত শাহ। মরুরাজ্যে রাজনৈতিক সংকটের ছক কষেছিলেন স্বয়ং অমিত শাহ, এমনই অভিযোগ অশোক গেহলট ঘনিষ্ঠ মন্ত্রী প্রতাপ সিং কাচারিওয়াসের। তাঁর দাবি, রাজস্থানে গত কয়েকদিনের রাজনৈতিক অস্থিরতার পুরোপুরি দায় বিজেপির এই শীর্ষনেতার।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে বেনজির আক্রমণ রাজস্থানের এক মন্ত্রীর। গেহলট ঘনিষ্ঠ মন্ত্রী কাচারিওয়াসের অভিযোগ, ‘রাজস্থানে রাজনৈতিক সংকটত তৈরির ষড়যন্ত্র করেছেন অমিত শাহ। তাঁর সঙ্গে ছিলেন ধর্মেন্দ্র প্রধান, পীযূষ গোয়েলও। তাঁরা জেনে বুঝে, রাজস্থানের কয়েকজন কংগ্রেস বিধায়ককে আলাদা রিসর্টে রেখেছেন।’

যদিও অমিত শাহদের রাজস্থান দখলের স্বপ্ন পূরণ হবে না বলে জানিয়েছেন ওই মন্ত্রী। রাজস্থান কংগ্রেসের ১০৯ বিধায়কের সমর্থন রয়েছে মুখ্যমন্ত্রী অশোক গেহলটের পক্ষে। এমনই দাবি মন্ত্রী কাচারিওয়াসের।

সচিন পাইলট বিদ্রোহ ঘোষণার পর থেকেই রাজস্থান সরকারে অনিশ্চয়তা তৈরি হয়। যদিও দলের সিংহভাগ বিধায়কের সমর্থন পেয়ে আপাতত স্বস্তিতে গেহলট শিবির।

তবে বিদ্রোহের সাজা পেয়েছেন সচিন পাইলট। উপ-মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে সরানো হয়েছে এই যুব নেতাকে। একইসঙ্গে রাজস্থান প্রদেশ কংগ্রেস কমিটির সভাপতির পদও কেড়ে নেওয়া হয়েছে সচিনের কাছ থেকে। এখনই তাঁকে দল থেকে বরখাস্তের পথে না হাঁটলেও শীঘ্রই তাঁর বিরুদ্ধে সেই কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার ভাবনায় কংগ্রেস হাইকম্যান্ড।

প্রশ্ন অনেক: তৃতীয় পর্ব