মস্কো: প্রথম ভারতীয় পুরুষ বক্সার হিসেবে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে উঠে ইতিহাস গড়েছিলেন শুক্রবার। কিন্তু শনিবার সোনা জয়ের অদূরেই থামতে হল অমিত পাঙ্ঘালকে। বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের মঞ্চ থেকে ঐতিহাসিক রুপো নিয়েই ফিরতে হচ্ছে হরিয়ানার বক্সারকে।

অলিম্পিক সোনাজয়ী উজবেক বক্সার শাখোবিদিন জইরভের বিরুদ্ধে সোনা জয়ের লড়াই খুব একটা সহজ ছিল না অমিতের জন্য। তবু শনিবার ৫২ কেজি ফ্লাই বিভাগের ফাইনালে নিজেকে শীর্ষে নিয়ে গিয়ে সাহসী লড়াই ছুঁড়ে দেন ভারতীয় বক্সার। তবে শেষরক্ষা হয়নি। জইরভের কাছে ০-৫ ব্যবধানে হেরে রুপোর পদক গলায় ঝুলিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হল অমিতকে। অমিতের রুপোর পাশাপাশি রাশিয়ার একাতেরিনবার্গে ৬৩ কেজি বিভাগে ব্রোঞ্জ জিতে নিয়েছেন মনীশ কৌশিক। অর্থাৎ, বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের পদক তালিকায় এযাবৎ এটাই ভারতের সেরা অবস্থান।

আরও পড়ুন: ছোটবেলায় ক্ষুধার্ত রোনাল্ডোকে হ্যামবার্গার দিতেন এই মহিলা

উল্লেখ্য, এর আগে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের মঞ্চে বিজেন্দর সিং, বিকাশ কৃষ্ণান কিংবা শিবা থাপা’রা ব্রোঞ্জ জিতলেও রুপো জয় এই প্রথম। শুক্রবার কাজাখস্তানের সাকেন বিবিসিনোভকে ৩-২ ব্যবধানে পরাজিত করে ইতিহাস গড়েন পাঙ্ঘাল। প্রথম ভারতীয় বক্সার হিসেবে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালের ছাড়পত্র জোগাড় করেন তিনি। অর্থাৎ বিজেন্দর সিং, বিকাশ কৃষ্ণানরা যা পারেননি তাই করে দেখান হরিয়ানার বছর তেইশের এই বক্সার। এর আগে ২০০৯ বিজেন্দর সিং, ২০১১ বিকাশ কৃষ্ণান, ২০১৫ শিবা থাপা ও ২০১৭ বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের মঞ্চে ব্রোঞ্জ জেতেন গৌতম বিধুরি।

আরও পড়ুন: রাঁচির লোডশেডিং নিয়ে ক্ষোভ উগরে দিলেন ধোনিপত্নী

সাম্প্রতিক সময়ে ভারতের সবচেয়ে ধারাবাহিক বক্সার হিসেবে নিজেকে প্রমাণ করেছেন অমিত। ২০১৭ এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপে ব্রোঞ্জ জয়ের পর ২০১৮ কমনওয়েলথ গেমসে রুপ জেতেন বছর তেইশের অমিত। এরপর ২০১৮ এশিয়ান গেমসে সোনা জিতে নেন হরিয়ানার এই বক্সার। এরপর চলতি বছর এপ্রিলে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপে সোনা জিতে বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের প্রস্তুতি সারেন অমিত।