শ্রীনগর: পাক পার্লামেন্টের বাইরে দেখা গেল অখণ্ড ভারতের ব্যানার। একটা-আধটা নয়, প্রায় শতাধিক। ভারতের কাশ্মীর পুনর্গঠন বিল পাশ হওয়ার পরই পাকিস্তানে এই ছবি দেখা গেল।

ভারতে এই বিল পাশ হওয়ার পর তীব্র বিরোধিতা করেছে পাকিস্তান। তারা এই ইস্যু রাষ্ট্রসংঘে নিয়ে যাবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছে। এমনকি পাক সেনা তৈরি আছে বলেও উল্লেখ করেছেন সেদেশের সেনাপ্রধান কামার জাভেদ বাজওয়া।

এরপরই পাকিস্তানের রাস্তায় দেখা যায় সেই ব্যানার। জানা গিয়েছে জায়গাটি শুধু পাক পার্লামেন্টের কাছেই নয়, পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বাড়ির অদূরেই।

ইসলামাবাদের একাধিক রাস্তায় এই ধরনের পোস্টার দেখা যাচ্ছে মঙ্গলবার থেকেই। যেখানে ম্যাপের মাধ্যমে বোঝানো হয়েছে কীভাবে গড়ে উঠবে অখণ্ড ভারত। তৈরি হবে ‘মহাভারত’৷ এখানেই শেষ নয়, সঙ্গে রয়েছে ৩৭০ ধারা বাতিলের পর শিব সেনা নেতা সঞ্জয় রাউতের একটি ছবি। যেখানে সংসদে দাঁড়িয়ে তিনি সোমবার বলেছিলেন, ‘আজ আমরা জম্মু-কাশ্মীর আদায় করেছি। আগামিকাল আমরা বালোচিস্তান ও অধিকৃত কাশ্মীর দখল করবো। এই সরকারের ওপর আমাদের বিশ্বাস রয়েছে এবং আমরা অখণ্ড ভারতের স্বপ্ন সফল করবোই।’

পোস্টারের নীচে লেখা আছে, মহাভারত, এ স্টেপ ফরোয়ার্ড। ইসলামাবাদের পুলিশ এসে এই পোস্টার ছিঁড়ে দিয়েছে। কিন্তু তার আগেই সেই পোস্টারের ছবি ভাইরাল হয়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। এই পোস্টার ঘিরেই এখন চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ইসলামাবাদে। কে বা কারা এই ধরনের পোস্টার লাগাল, সেই প্রশ্ন ঘিরে তৈরি হয়েছে জল্পনা।

মঙ্গলবার পাক সেনার পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে বলা হয়, কাশ্মীরিদের প্রতি দায়বদ্ধতা পূরণে যে কোনও কিছু করতে পাক সেনাবাহিনী প্রস্তুত। এদিন রাওয়ালপিন্ডিতে সেনা কমান্ডারদের একটি বিশেষ বৈঠক ছিল। সেই বৈঠক শেষে পাক সেনার মুখপাত্র আসিফ গফুর বলেন, কাশ্মীরি জনগণের প্রতি আমাদের দায়বদ্ধতার জন্য যতদূর করতে হয় তার জন্য পাক সেনাবাহিনী প্রস্তুত।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ