গ্রাহকদের কথা ভেবে বরাবর একের পর এক প্ল্যান নিয়ে আসে নেটওয়ার্কিং কোম্পানি গুলি। বিশেষত করোনা পরবর্তী সময়ে গ্রাহকদের কথা মাথাতে রেখে একের পর এক প্ল্যান নিয়ে এসেছে তারা। এমনকি গ্রাহকদের কথা ভেবে অতিরিক্ত সুবিধা আনার কথাও তারা জানিয়েছে। তবে তার মধ্যে অল্প দামের মধ্যে বেশ কিছু কোম্পানি নিয়ে এসেছে নতুন প্ল্যান। এই সকল প্ল্যানে রয়েছে সুবিধা।

এয়ারটেলের ৩৯৯ টাকার প্ল্যানে রয়েছে একাধিক সুবিধা। এই প্ল্যানে ৪০ জিবি ডেটা ব্যবহারের সুবিধা পাবেন সাধারণ গ্রাহকেরা। সঙ্গে পাবেন আন লিমিটেড কলের সুবিধাও। এই ৩৯৯ টাকার পোস্টপেড প্ল্যানে রয়েছে বিনোদনের একাধিক সুবিধাও। সঙ্গে রয়েছে ১৫০ টাকার ক্যাশব্যাকের সুবিধাও। গ্রাহকদের জন্য ৩৯৯ টাকার এই প্ল্যান আনা হয়েছে একাধিক সার্কেলে। আগে এই প্ল্যান উপলব্ধ ছিল নিরিদস্ত কিছু সার্কেলেই।

এই প্ল্যান ব্যবহারের গ্রাহকেরা পেয়েছেন একাধিক সুবিধা। জিওর সঙ্গে বরাবর একটি প্রতিযোগিতা চালিয়ে এসেছে এয়ারটেল। জিওর তরফেও আনা হয়েছে ৩৯৯ টাকার প্ল্যান। জিওর ৩৯৯ টাকা থেকে ১৪৯৯ পর্যন্ত রয়েছে পোস্টপেড প্ল্যানের সুবিধাও। ৩৯৯ টাকার প্ল্যানে রয়েছে ৭৫ জিবি ডেটা ব্যবহারের সুবিধা। এছাড়া রয়েছে আন লিমিটেড কলের পাশপাশি অন্যান্য একাধিক সুবিধা। এমনকি গ্রাহকদের জন্য বিনোদনের সুবিধাও এনেছে জিও। তারা যুক্ত হয়েছে একাধিক ওটিটি প্ল্যাটফর্মের সঙ্গে।

এছাড়া নতুন ভাবে লঞ্চ হওয়ার পরে গ্রাহকদের জন্য ৩৯৯ টাকার প্ল্যান নিয়ে এসেছে উই। এই প্ল্যানে রয়েছে ৪০ জিবি ডেটা ব্যবহারের সুবিধাও। সঙ্গে রয়েছে আন লিমিটেড এসটিডি কল সহ অন্যান্য বেশ কিছু সুবিধা। এছাড়া রয়েছে বিনোদনের সুবিধাও। অর্থাৎ মাত্র ৩৯৯ টাকার মধ্যে এবারে নেটওয়ার্কিং কোম্পানি নিয়ে এসেছে এক ঝাঁক প্ল্যান। তবে তার মধ্যে রয়েছে একাধিক তারতম্য। আর গ্রাহকেরা এই বিষয়টি বিচার করে নিজেদের সুবিধা মত প্ল্যান ব্যবহার করতে পারবেন।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।