নয়াদিল্লি: ক্রিশ্চিয়ান মিশেলের পর অগস্তা চপারকাণ্ডে অভিযুক্ত রাজীব সাক্সেনাকে ভারতের হাতে তুলে দিল সংযুক্ত আরব আমিরশাহী৷ ৩৬ হাজার কোটি টাকার চপার দুর্নীতিতে অভিযুক্ত রাজীবকে বুধবারই ভারতের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে৷ এদিন রাতে তারা ভারতে এসে পৌঁছবেন৷ রাজীব ছাড়াও দীপক তলোয়ার নামে আরও এক অভিযুক্তকে ভারতকে প্রত্যার্পণ করা হয়েছে৷

তবে এই প্রত্যার্পণের তীব্র বিরোধীতা করেছেন রাজীব সাক্সেনার দুই আইনজীবী৷ অভিযোগ, তাদের মক্কেলকে অবৈধভাবে ভারতের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে৷ সংবাদসংস্থা এএনআই তাদের উদ্ধৃত করে জানিয়েছে, এদিন সকাল ১১টা নাগাদ সাক্সেনাকে তাঁর বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে যাওয়া হয়৷ দুবাই ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট থেকে প্রাইভেট জেটে সন্ধ্যা ৭টা নাগাদ ভারতের বিমানে তাঁকে তুলে দেওয়া হয়৷

ইউপিএ সরকারের আমলে ৩ হাজার ৭২৭ কোটি টাকার অগস্তা চপারকাণ্ড হয়। অভিযোগ ওঠে ইতালিতে তৈরি এই চপার ভারতকে বিক্রি করতে টেবিলের তলা দিয়ে চুক্তি হয়েছে। ব্রিটেনের নাগরিক ক্রিশ্চিয়ান মিশেন এই চপার দুর্নীতির অন্যতম কুশীলব বলে জানা যায়। মিচেলকে প্রায় ৩৫০ কোটি টাকা দেওয়া হয়েছিল বলে অভিযোগ। এছাড়াও ভারতের বিভিন্ন প্রভাবশালীদের পকেটেও একটা বড় অঙ্কের অর্থ এসেছিল বলেও অভিযোগ। সেই মিশেলকে গত বছর ডিসেম্বর মাসে ভারতের হাতে তুলে দেয় আরব আমিরশাহী৷