ম্যাঞ্চেস্টার: ঘরের মাঠে লেস্টার সিটিকে ৫-১ গোলের বিশাল ব্যবধানে উড়িয় দিল ম্যান সিটি৷ সৌজন্যে, সার্জিও আগুয়েরোর দুরন্ত ফর্ম৷ আর্জেন্টাইন তারকা একাই করেন চারটি গোল৷ দোসর হিসেবে সঙ্গে পান কেভিন ডি’ব্রুইনকে৷ অনবদ্য ফুটবল উপহার দেন রহিম স্টার্লিংও৷ তিনজনের মিলিত প্রয়াসে প্রিমিয়র লিগের পয়েন্ট তালিকায় কার্যত বাকিদের ধরা ছোঁয়ার বাইরে চলে যায় ম্যাঞ্চেস্টার সিটি৷

আরও পড়ুন: হ্যারি কেনের দাপটে ডার্বি হার গানার্সদের

ম্যাচের শুরুতেই কেভিন ডি’ব্রুইনের পাস থেকে সিটির হয়ে ম্যাচে প্রথম গোল স্টার্লিংয়ের৷ তবে ব্যবধান খুব বেশক্ষণ ধরে রাখতে পারেনি গুয়ার্দিওলার ছেলেরা৷ ২৪ মিনিটে হোম টিমের জালে বল জড়িয়ে ম্যাচে সমতা ফেরান জেমি ভার্ডি৷ প্রথমার্ধের খেলা শেষ হয় ১-১ গোলের সমতায়৷

আরও পড়ুন: বৃষ্টি বিঘ্নিত গোলাপি ম্যাচে ৫ উইকেটে হার কোহলিদের

দ্বিতায়ার্ধে শুরু আগুয়েরো ম্যাজিক৷ ৪৮ মিনিটে ডি’ব্রুইনের পাস থেকে গোল করে সিটিকে ২-১ গোলে এগিয়ে গেন আগুয়েরো৷ ৫৩ মিনিটে সেই কেভিনের ক্রস থেকেই লেস্টারের জালে দ্বিতীয়বার বল জড়ান সার্জিও৷ ম্যাচের স্কোর লাইন দাঁড়ায় ৩-১৷ প্রথম তিনটি গোলের ক্ষেত্রই গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন ডি’ব্রুইন৷

৭৭ মিনিটে লেস্টার গোলরক্ষকের ভুলের সুযোগ নিয়ে হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন আগুয়েরো৷ ৯০ মিনিটে ফডেনের পাস থেকে ২০ গজের আগুনে শটে সিটির হয়ে পাঁচ নম্বর গোল সার্জিওর৷

আরও পড়ুন: ইংল্যান্ডকে হারিয়ে ফাইনালে অস্ট্রেলিয়া

লেস্টারকে বিধ্বস্ত করার পর ম্যান সিটির পয়েন্ট দাঁড়ায় ২৭ ম্যাচে ৭২৷ দ্বিতীয় স্থানে থাকা ম্যান ইউ ২৬ ম্যাচে ৫৬ পয়েন্ট সংগ্রহ করতে পেরেছে এ পর্যন্ত৷ অর্থাৎ ১৬ পয়েন্টের বিশাল লিড হাতে রয়েছে গুয়ার্দিওলার৷

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।