স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: ভাগাড় কাণ্ড নিয়ে মানুষের আতঙ্ক দুর করতে নয়া উদ্যোগ রাজ্য সরকারের৷ মানুষের মন থেকে ভয় দূর করতে অভিনেতা অভিনেত্রীদের কাজে লাগানোবার পরিকল্পনা করেছে রাজ্য৷

এ ব্যাপারে তিনি পাশে পেতে চাইছেন টলিউডের নায়ক-নায়িকাদের৷ জনপ্রিয় মুখের কাছ থেকে মাংস সম্পর্কে আশ্বাস বাণী শুনলে হয়তো কিছুটা আতঙ্ক কাটতে পারে, এমনই মনে করছে রাজ্য সরকার৷
এই ইস্যুতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নির্দেশ দিয়েছেন, ভাগাড় কান্ডের আতঙ্ক দুর করতে নামি অভিনেতা-অভিনেত্রীদের দিয়ে তৈরি করতে হবে বিজ্ঞাপন। যা প্রচারিত হবে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে।

তিনি বলেছেন টিভি চ্যানেলে প্রচারিত বিজ্ঞাপন গুলির মাধ্যমে মাংসের প্রতি মানুষের যে আতঙ্ক তৈরি হয়েছে, সেই আতঙ্ক দূর করা সম্ভব হবে। এদিন নবান্নে বাজারের জন্য তৈরি টাস্কফোর্সের আধিকারিকদের সঙ্গে বৈঠক করেন মুখ্যমন্ত্রী। সেখানেই এই নির্দেশ দেন তিনি। পাশাপাশি তিনি বলেছেন অভিনেতা দেব এবং অভিনেত্রী কোয়েলকে দিয়ে বিজ্ঞাপন তৈরি করা হোক।

শুধু ভাগাড় কাণ্ডের জেরে মাংস বিক্রি কম হয়ে যাওয়াই নয়, মাংসের যোগান বাড়াতেও বেশকিছু নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। স্বনির্ভর গোষ্ঠীকে দিয়ে হাঁসের পোলট্রি তৈরি করা, মুরগির মাংস যাতে আরো বেশি পরিমাণে উৎপাদন করা যায়, সেদিকে নজর দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী।

কেবল উৎপাদন বৃদ্ধি করাই নয়, প্রতিটি থানা এলাকায় ভাগাড় কাণ্ড নিয়ে নজরদারি চালানোর জন্য থানা গুলিকে বিশেষ নির্দেশ দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ মাংসের পাশাপাশি ইলিশের আমদানিও যাতে এরাজ্যে বাড়ে সেদিকেও নজর দেবার জন্য সংশ্লিষ্ট দফতরগুলিকে নির্দেশ দিয়েছেন তিনি।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় নজর দিয়েছেন সবজির দিকেও৷ ক্রমাগত বৃদ্ধি পাচ্ছে আলুর দাম৷ সেই দিক থেকে মুখ্যমন্ত্রী বলেছেন বাজারগুলিতে নজরদারি চালাতে হবে৷ তার পাশাপাশি আলু যাতে ভিন রাজ্যে বেশি পরিমাণে রফতানি না হয় সেদিকেও নজর রাখতে হবে।

পেঁয়াজের দাম যাতে বৃদ্ধি না পায় সে কারণে পেঁয়াজ চাষের জন্য রাজ্যকে স্বনির্ভর হতে হবে বলে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী। বর্ষায় পেঁয়াজ চাষের ওপর চাষিদের নজর দিতে হবে ও আরও উদ্যোগ নিতে হবে এই বিষয়ে বলে পরামর্শ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷