সৌপ্তিক বন্দ্যোপাধ্যায় : হাওড়ায় মেয়েকে ধর্ষণ হওয়া থেকে বাঁচাতে গিয়ে মৃত্যু হয় মায়ের। অভিযোগ এই ঘটনায় অভিযুক্ত স্থানীয় তৃণমূল নেতা। ওই অভিযুক্তকের কঠিন শাস্তির দাবী নিয়ে পথে নামবে তাঁরা

এবিভিপি’র পক্ষে জানানো হয়েছে, কলেজ ছাত্রী মেয়ের ধর্ষণ রুখতে গিয়ে মৃত্যু হল মায়ের। গোটা ঘটনায় অভিযুক্ত শাসকদলের এক স্থানীয় নেতা ও এক কর্মী।’ তাঁরা আরও জানাচ্ছেন , ‘কামদুনি, বোলপুর, মেদনীপুর, জলপাইগুড়ি, মালদা সব জায়গাতেই মেয়েরা সুরক্ষিত নয়। এবং হাওড়ার বাগনানের ঘটনা প্রমাণ করে দিল এই রাজ্যের মহিলারা আজ ঘরের মধ্যেও সুরক্ষিত নেই। অন্য রাজ্যে কিছু হলেই আমাদের তথাকথিত কিছু বুদ্ধিজীবী রাস্তায় নেমে পরেন। কিন্তু নিজের রাজ্যেই এত বড় ঘটনা ঘটে গেল অথচ তা নিয়ে কোনও ভ্রুক্ষেপ নেই।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে দক্ষিণবঙ্গ রাজ্য সম্পাদক শ্রী সুরঞ্জন সরকার বলেন, ‘যে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী একজন মহিলা সেই রাজ্যে দিনের পর দিন যেভাবে ধর্ষণ বেড়েই চলেছে তাতে মহিলার যে আজ কোথাও সুরক্ষিত নয় তা আবার প্রমাণ হয়ে গেল। প্রতিক্ষেত্রেই দেখা যাচ্ছে দোষীরা শাসকদলের মদতপুষ্ট বলে প্রশাসন অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নিচ্ছে না। কিন্তু বিদ্যার্থী পরিষদ এই রকম অন্যায় এর বিরুদ্ধে বারবার সোচ্চার হয়েছে এবং আগামীদিনেও হবে। যদি প্রশাসন সময়মতো অভিযুক্ত ধর্ষণকারীদের গ্রেপ্তার করে আইনানুগ ব্যবস্থা না নেয় তাহলে এবিভিপি আগামীদিনে বৃহত্তর আন্দোলনে নামবে।’

শ্লীলতাহানি রুখতে গিয়ে অভিযুক্তের হামলায় মৃত্যু হয় মায়ের। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে বুধবার রণক্ষেত্র হয় হাওড়ার বাগনানের খাদিনান মোড়। অভিযোগ, শ্লীলতাহানির ঘটনায় নাম জড়িয়েছে তৃণমূলের। তারই প্রতিবাদে খাদিনান মোড়ের কাছে ৬ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করে তুমুল বিক্ষোভ দেখান সাংসদ লকেট চট্টোপাধ্যায় এবং সৌমিত্র খাঁ।

ফোনের নেটওয়ার্কের সমস্যা হচ্ছিল। তাই বাধ্য হয়ে বাড়ির ছাদে উঠে যান এক কলেজ ছাত্রী। তবে অভিযোগ, সেই সময় ছাদে কেউ লুকিয়ে বসেছিল। তাঁকে পিছন থেকে জড়িয়ে ধরে শ্লীলতাহানি করে। চিৎকার করতে থাকেন কলেজ ছাত্রী। তা শুনে ছাত্রীর মা ছাদে উঠে যান। মেয়ের শ্লীলতাহানিতে বাধা দিতে যান মা। অভিযোগ, ওই ব্যক্তির সঙ্গে ধস্তাধস্তি হতে শুরু হয় কলেজ ছাত্রীর মায়ের। ধাক্কা দেয় ওই ব্যক্তি। ছিটকে সিঁড়ি দিয়ে গড়িয়ে নিচে পড়ে যান কলেজ ছাত্রীর মা। মাথায় প্রচণ্ড আঘাত পান তিনি।

পরিস্থিতি বেগতিক দেখে ইতিমধ্যেই ঘটনাস্থল থেকে পালায় ওই ব্যক্তি। কলেজ ছাত্রীর মাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। তবে চিকিৎসকরা জানান, ছাত্রীর মায়ের মৃত্যু হয়েছে। বাগনান থানায় ওই তৃণমূল নেতার বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করতেও যান তাঁরা। এরপর দুই সাংসদের উপস্থিতিতে থানা সংলগ্ন ৬ নম্বর জাতীয় সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ দেখাতে থাকেন বিজেপি কর্মী-সমর্থকরা।

Proshno Onek II First Episode II Kolorob TV