নয়াদিল্লি : আধার কার্ড না থাকলেও স্কুলে ভরতি হওয়া আটকাতে পারবে না স্কুল কর্তৃপক্ষ৷ এমনই নির্দেশ রয়েছে ‌ইউনিক আইডেন্টিফিকেশন অথরিটি অফ ইন্ডিয়া বা ‌ইউআইডিএআইয়ের৷ তাঁরা এই বিষয়ে পরিস্কার করে জানিয়ে দিয়েছে আধার নেই, এই মর্মে যদি কোনও পড়ুয়ার স্কুলে ভরতি হওয়া আটকে যায়, তবে তা অনৈতিক বলে গণ্য করা হবে। এমনকি স্কুলের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে কার্যত হুঁশিয়ারি দেওয়া রয়েছে৷ স্কুল যদি এই ধরণের কোনও ঘটনা ঘটায়, তবে তা গ্রাহ্য করবে না ইউআইডিএআই বলে জানানো হয়েছে৷

এই মর্মে গত মাসখানেক আগেই একটি নির্দেশিকা জারি করেছে ইউআইডিএআই৷ তা ইতিমধ্যে বিভিন্ন রাজ্যের মুখ্য সচিবদের কাছে পৌঁছে গিয়েছে। নির্দেশিকাতে বলা হয়েছে, দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে এই সংক্রান্ত নানা অভিযোগ আসছে৷ বিভিন্ন স্কুলের বিরুদ্ধে অভিযোগ আধার কার্ড ছাড়া স্কুলে ভরতি নিচ্ছে না তারা৷ কিন্তু এই জাতীয় কোনও অভিযোগের ভিত্তি নেই৷ কারণ আধার নম্বর ছাড়াও স্কুলে ভরতি করা যাবে ছাত্র ছাত্রীদের৷

স্থানীয় ব্যঙ্ক, পোস্টঅফিস, রাজ্য শিক্ষা দফতর ও স্থানীয় প্রশাসনের সাথে স্কুলগুলিকে যোগাযোগ রেখে চলতে বলা হয়েছে৷ যাতে আধার কার্ড না থাকা শিশুদের সম্পর্কে খোঁজখবর নিতে কোনও অসুবিধা না হয়।

নির্দেশিকায় আরও বলা হয়েছে, ‌আধার কার্ডের অভাবে যাতে স্কুলে ভরতি হওয়া না আটকায়, তা নিশ্চিত করতে হবে৷ শুধু স্কুলে ভর্তি হওয়াই নয়, আধার না থাকার কারণে শিক্ষার পরিষেবাতেও কোনও পার্থক্য বা বৈষম্য আনা যাবে না৷ শিক্ষার অধিকার থেকে যেন কেউ বঞ্চিত না হয়, তা দেখার দায়িত্ব স্কুলের ওপরেই ছেড়েছে ইউআইডিএআই৷

ইউআইডিএআইয়ের এই নির্দেশিকায় যথেষ্ট স্বস্তিকে অভিভাবকরা৷ কারণ অনেক স্কুলই আধার কার্ড না থাকার জন্য ফিরিয়ে দিচ্ছিল পড়ুয়াদের৷ আটকে যাচ্ছিল শিশুদের স্কুলে ভরতির মত গুরুত্বপূর্ণ প্রক্রিয়া৷ গোটা দেশ জুড়েই এই সমস্যা তৈরি হয়েছিল৷