নয়াদিল্লিঃ বর্তমানে দেশের জনগণের কাছে আধার কার্ড সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। যে কোন জায়গাতে অধিকাংশ মানুষই এই কার্ডকে প্রামাণ্য নথি হিসেবে পেশ করে থাকে। আর এবার থেকে ৫ বছরের নীচের শিশুদের জন্য আসতে চলেছে এই আধার কার্ড। আর ইউনিক আইডিন্টিফিকেশন নম্বর( ইউআইডিআই) এর তরফ থেকে জানানো হয়েছে ৫ বছরের নীচের শিশুদের আধার কার্ড করার ক্ষেত্রে তাদের স্কুলের আই কার্ডকে নথি হিসেবেও গণনা করা হবে।

এও জানানো হয়েছে শিশুদের এই আধার কার্ড নীল আধার কার্ড বা বাল আধার হিসেবে বিবেচিত হবে। তাঁদের অভিভাবকদের স্পষ্ট করে জানানো হয়েছে ৫ এবং ১৫ বছর পরে নিজের সন্তানের বায়োমেট্রিক আধার কার্ডের ডেটা আপডেট করতে হবে। কারণ এই কার্ড কেবল মাত্র ৫ বছর পর্যন্ত ব্যবহার করা যাবে তারপরে কার্ডটি নিস্ক্রিয় হয়ে যাবে৷

ইউআইডিআই তাদের অফিসিয়াল টুইটার হ্যান্ডেল থেকে জানিয়েছে কেবলমাত্র ৫ বছর বয়সী শিশুদের ক্ষেত্রেই এই নীল আধার কার্ড বা বাল আধার প্রযোজ্য হবে। তারপরে কার্ডটি চালু রাখতে হলে বাধ্যতামূলক ভাবে তা আপডেট করতে হবে। নয়তো কার্ডটি নিষ্ক্রিয় হয়ে পড়বে।

পাশাপাশি অন্য একটি টুইট করে জানানো হয়েছে এই আধার কার্ড বানানোর জন্য বাচ্চাদের স্কুলের আই কার্ড প্রামাণ্য নথি হিসেবে ব্যবহার করা যাবে।

এই আপডেট বিনামূল্যে করা যাবে। ইউআইডিআই এর তরফ থেকে পরিষ্কার করে জানানো হয়েছে ৫ বছরের নীচের শিশুদের জন্য বায়োমেট্রিক পদ্ধতি বাধ্যতামূলক নয়। আর শিশুদের আধার কার্ডে বায়োমেট্রিক যেমন হাতের ছাপ বা চোখের আইরিস স্ক্যান বাধ্যতামূলক নয়। কেবলমাত্র ৫ বছরের বেশী হলে তবেই বায়োমেট্রিক আপডেট করা যাবে।