স্টাফ রিপোর্টার, মুর্শিদাবাদ: ভয়াবহ পথ দুর্ঘটনায় মৃত পাঁচ জনের নিথর দেহ ফিরল কান্দিতে। মৃতদের প্রত্যেকেই এলাকায় তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা হিসেবে পরিচিত ছিলেন। মৃতরা হলেন আব্দুল হাজি কালাম শেখ, হাটপাড়ার বাসিন্দা ও গোকর্ন দুই গ্রাম পঞ্চায়েত তৃণমূল সদস্য, হায়দার আলি, প্রাক্তন কৃষি কর্মাধ্যক্ষ (কান্দি পঞ্চায়েত সমিতি), দেবসাগর দে, পুরন্দরপুর গ্রাম পঞ্চায়েত তৃণমূল সদস্য, প্রদীপ দাস, পেশায় গাড়ি চালক, রসোড়ার বাসিন্দা এবং অসিত দাস, পুরন্দরপুর গ্রামে গ্রামীন চিকিৎসা করত সে। ঘটনা ঘটেছে পূর্ব মেদিনীপুর জেলার ১১৬ বি দিঘা নন্দকুমার জাতীয় সড়কে মারিশদার কাছে।

পুলিশ সূত্রে খবর, মঙ্গলবার রাতে দিঘায় পিকনিক করার উদ্দেশ্যে রওনা দেন ওই ছ’জন৷ শুক্রবার পিকনিক করে ফেরার কথা ছিল৷ কিন্তু বুধবার রাতেই ফিরে এল তাঁরা৷ তবে ফিরল তাঁদের নিথর দেহ৷ একটি বোলেরো গাড়িতে করে যাত্রা শুরু করেছিল ওই ছ’জন৷ কনটাই মহকুমা হাসপাতালে ছয় জনের মৃতদেহ ময়না তদন্তের পর পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হয় বলে জানা গিয়েছে।

প্রসঙ্গত, একটি বোলের গাড়ি করে কান্দি থেকে দীঘা যাচ্ছিলেন ওই পাঁচ জন৷ কিন্তু বিপরীত দিক থেকে আসা একটি বাস নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ওই বোলেরো গাড়িকে ধাক্কা মারে৷ ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারায় পাঁচজন৷ জানা গিয়েছে, সকলেই মুর্শিদাবাদ জেলার কান্দি মহকুমার কান্দি থানার বাসিন্দা ছিলেন।

এই পরিস্থিতির পর একেবারে থমথমে পরিবেশের সৃষ্টি হয়েছে ওই এলাকায়৷ খবর ছড়াতেই কান্দি ব্লক চত্বরে সাধারণ মানুষের ভিড় জমতে থাকে৷ কান্দি মহকুমা তৃণমূল কংগ্রেস পক্ষ থেকে কান্দি ব্লক অফিস চত্বরে সবাইকে শেষ শ্রদ্ধা জানানো হয়। পরে পরিবারের হাতে মৃতদেহ তুলে দেওয়া হয় শেষকৃত্য সম্পন্ন করা জন্য। এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে গোটা এলাকায়।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

Tree-bute: রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও