নয়াদিল্লি: দু’দিন পরেই দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ঘরের মাঠে সিরিজ খেলতে নামছে কোহলি অ্যান্ড কোং৷ প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে সিরিজ শুরুর আগে ফিটনেস নিয়ে মাহির প্রশংসা শোনা গেলে ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহলির মুখে৷

ক্যারিবিয়ান দ্বীপপুঞ্জে তিন ফর্ম্যাটেই সিরিজ জিতে দেশে ফিরে পরিবারের সঙ্গে দারুণ সময় কাটাচ্ছেন বিরাট৷ এই মুহূর্তে বিশ্বের অন্যতম সেরা ক্রিকেটার হলেন কোহলি৷ ফিটনেস ট্রেনিংয়ের ভিডিও প্রায়ই সোশাল মিডিয়ায় আপলোড করতে দেখা গিয়েছে বিরাটকে৷ বৃহস্পতিবার ধোনির সঙ্গে তাঁর ‘রানিং বিটউন দ্য উইকেট’-এর ছবি দিয়ে ফিটনেসের কথা তুলে ধরেন কোহলি৷

টিম ইন্ডিয়ার ক্রিকেটারদের ফিটনেসের জন্য এখন ইয়ো ইয়ো টেস্ট নেওয়া হয়৷ যে কোনও সিরিজের আগেই ইয়ো ইয়ো টেস্ট দিতে হয় বিরাটদের৷ কিন্তু কোহলি মনে করেন তাঁর ফিটনেস জার্নি শুরু হয়েছিল ২০১২ থেকে৷ তবে এদিন ২০১৬ টি-২০ বিশ্বকাপে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ম্যাচের কথা উল্লেখ করেন বিরাট৷

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে ধোনির সঙ্গে তাঁর ‘রানিং বিটউন দ্য উইকেট’ এদিন ফেসবুকে আপলোড করে ক্যাপশন হিসেবে ভারত অধিনায়ক লেখেন, ‘এই ম্যাচটার কথা কখনও ভুলতে পারব না৷ ওটা ছিল স্পেশাল নাইট৷ এই লোকটার সঙ্গে রান নেওয়া মানেই ফিটনেস টেস্ট দেওয়া৷’ এই ম্যাচে ১৬১ রান তাড়া করতে নেমে সমস্যায় পড়েছিল ভারত৷ ‘রানিং বিটউন দ্য উইকেট’ নিয়ে সমস্যা হচ্ছিল যুবরাজ সিংয়ের৷ ১৪তম ওভারে যুবরাজ আউট হওয়ার পর বিরাটের সঙ্গে ব্যাট করতে নেমেছিলেন ধোনি৷

মোহালির পিচে ভারতের জয়ের জন্য দরকার ছিল ৬ ওভারে ৬৭ রান৷ ক্রিজে তখন কোহলি ও ধোনি৷ দ্রুত সিঙ্গলস নিয়ে অজি ফিল্ডারদের চাপে রেখেছিলেন মাহি৷ এমনকী ডেভিড ওয়ার্নারের মতো ফিল্ডারও ধোনির সিঙ্গলস নেওয়া আটকাতে পারেননি৷ ডেথ ওভারে এক ওভারে ধোনির সঙ্গে চারবার দু’রান করে নেওয়ার জন্য প্রাক্তন ভারত অধিনায়কের প্রশংসা করেন বিরাট৷ ধোনি ও কোহলির ‘রানিং বিটউন দ্য উইকেট’-এর কাছে হেরে যায় অস্ট্রেলিয়া৷ পাঁচ বল বাকি থাকতেই ম্যাত জিতে নেয় ভারত৷