চণ্ডীগড়: লুধিয়ানা-চণ্ডীগড় রেলওয়ে লাইনের জন্য কৃষক সম্পূরাণ সিং-য়ের জমিকে নির্বাচিত করেছে সরকার৷ আগে থেকেই ক্ষতিতে চাষাবাদ করছিলেন সম্পূরাণ সিং৷ জমি নেওয়ার জন্য সরকারের পক্ষ থেকে তাকে এক কোটি ৪৭ লক্ষ টাকা দেওয়ার ঘোষণা করা হয়েছিল৷ কিন্তু কোনও কারণে মাত্র ৪২ লক্ষ টাকাই দেওয়া হয় তাকে৷

২০১২-য় সরকারের বিরুদ্ধে সরকারের বিরুদ্ধে মামলা করেন সম্পূরাণ সিং৷ কোর্টের রায়ে সরকারকে বলা হয়েছিল তাকে সম্পূর্ণ ক্ষতিপূরণ মিটিয়ে দিতে হবে৷ কিন্তু কোনও অজ্ঞাত কারণে মান্য হয়নি কোর্টের সেই রায়৷ ফলে আবার কোর্টে পিটিশন দায়ের করেন চাষি সম্পূরাণ সিং৷ এবার কোর্টের রায় শুনলে আপনার চোখ ছানাবড়া হয়ে যাবে…

এবার কোর্টের রায়ে বলা হয়েছে, ১২০৩০ নম্বরের স্বর্ণ শতাব্দী এক্সপ্রেসটি কৃষক সম্পূরাণ সিং-য়ের হাতে তুলে দিতে হবে রেল মন্ত্রককে৷ শুধু তাই নয় স্টেশন মাস্টারের ঘরটিও তাকে ছেড়ে দিতে হবে৷ রায় ঘোষণার ঘণ্টা খানেকের মধ্যেই সম্পূরাণ সিং ও তার আইনজীবী রাকেশ গান্ধী স্টেশনে পৌঁছে যায়৷ যাত্রীদের অপেক্ষা না করেই কোর্টের নির্দেশনামা তুলে দেয় ট্রেনের ড্রাইভারের হাতে৷ যেহেতু ট্রেনটি সঙ্গে করে নিয়ে যেতে পারবেন না সম্পূরাণ সিং তাই ট্রেনটি বর্তমানে কোর্টের সম্পত্তি বলেই গণ্য হচ্ছে৷