ইটানগর: একদিন আগেই মৃত্যু হয়েছে অরুণাচল প্রদেশের বিধায়ক ও এনপিপি নেতা তিরোঙ আবোর৷ মৃত্যু হয়েছে তাঁর ছেলে সহ আরও ১০ জনের৷ এই প্রসঙ্গেই নিজের ফেসবুক পোস্টে কেন্দ্রের অবস্থান স্পষ্ট করেন অরুণাচল প্রদেশের বাসিন্দা ও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের রাষ্ট্রমন্ত্রী কিরণ রিজিজু৷

তিনি বলেন স্থানীয় বাসিন্দাদের সহযোগিতা ছাড়া অরুণাচলে সেনার টহলদারি বাড়ানো সম্ভব নয়৷ তিনি এদিন কথা বলেন আফস্পা নিয়েও৷ বলেন কিছু ব্যক্তি চাইছে আফস্পা উঠে যাক৷ কিন্তু মানুষের নিরাপত্তার সুরক্ষা দেওয়ার জন্য আফস্পা অরুণাচলে দরকার৷ সবাই একজোট হয়ে দাঁড়ালে সন্ত্রাসবাদও ভয় পায়৷

ক্রমশ বাড়ছে মৃতের সংখ্যা। এখনও পর্যন্ত এই ঘটনায় ১১ জনের মৃত্যু হয়েছে বলে জানা যাচ্ছে। ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক চাঞ্চল্য তৈরি হয়েছে এলাকায়। জানা গিয়েছে, গাড়ি ঘিরে ব্রাশ ফায়ার করা হয়েছে। যার ফলে বিধায়কের পরিবারের অনেকেরই মৃত্যু হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। অতর্কিত হামলায় বিধায়কের সঙ্গে থাকা দেহরক্ষীদের মৃত্যু হয়েছে বলে জানা গিয়েছে।

সূত্রে খবর, মায়ানমার থেকে ঢুকে তিরাপ জেলায় এই হামলা চালায় জঙ্গিরা। সন্দেহ এনএসসিএনের দিকেই। ভয়াবহ বিস্ফোরণে প্রাণ হারালেন অরুণাচল প্রদেশের খোনসা পশ্চিম বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক তিরোং আবো৷ ন্যাশনাল পিপলস পার্টি বা এনপিপি দলের বিধায়ক ছিলেন তিনি৷ এরই সঙ্গে প্রাণ হারিয়েছেন আরও ৬ জন৷

এই বিস্ফোরণের পিছনে সক্রিয় জঙ্গি সংগঠন এনএসসিএন বা ন্যাশনাল সোশ্যালিস্ট কাউন্সিল অফ নাগাল্যাণ্ডের হাত রয়েছে বলে প্রাথমিক সূত্রে খবর৷ বিধায়ক আবোহ খোনসা পশ্চিম বিধানসভা কেন্দ্রে পুনর্নির্বাচনে প্রতিন্দ্বন্দ্বিতা করেন৷ ২৩ শে সেই ফল ঘোষণার কথা ছিল৷ অরুণাচল প্রদেশের তিরাপ জেলার বোগাপানি গ্রামে এই ভয়াবহ বিস্ফোরণ হয়৷

মেঘালয়ের মুখ্যমন্ত্রী ও এনপিপি প্রধান কনরাড কে সাংমা এই বিস্ফোরণের সত্যতা স্বীকার করেছেন৷ ট্যুইট করে এই বিস্ফোরণের খবর জানিয়েছেন সাংমা৷ তিনি বলেন ভয়াবহ হামলা চলেছে আমাদের দলের বিধায়কের ওপর৷ প্রাণ হারিয়েছেন আরও৷ গোটা ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা করছি৷

প্রধানমন্ত্রীর দফতর ও কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিংকে গোটা বিষয়টি খতিয়ে দেখার অনুরোধ করেছেন তিনি৷ কড়া হাতে রাজ্য থেকে সন্ত্রাসবাদ দমনের ডাকও দিয়েছেন৷