নয়াদিল্লিঃ  দীর্ঘদিন ধরেই বেতন বৃদ্ধি সহ একাধিক বিষয়ে লাগাতার আন্দোলন চালিয়ে গিয়েছেন সরকারি কর্মীরা। অবশেষে সে বিষয়ে বড় সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে মোদী সরকার। সবকিছু ঠিক থাকলে বাজেটেই সরকারি কর্মীদের বড় কিছু ঘোষণা করতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার। ইতিমধ্যে বাজেটের আগে এক পর্যালোচনায় সরকারি কর্মীদের সমস্ত দাবি দাওয়া খতিয়ে দেখেছেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ। সমস্ত রিপোর্ট চাওয়া হয়েছে।

জানা যাচ্ছে এরপরেই দীর্ঘদিনের সরকারি কর্মীদের দাবিদাওয়া নিয়ে বড় কিছু সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে মোদী সরকার। আগামী ৫ জুলাই দ্বিতীয় মোদী সরকারের আর্থিক বাজেট পেশ করতে চলেছেন অর্থমন্ত্রী। বাজেটে নুন্যতম বেতন বৃদ্ধি সহ একাধিক বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হতে পারে। এছাড়া আর্থিক ছাড়ের ক্ষেত্রেও বড় কিছু ঘোষণা করা হতে পারে বলে জানা যাচ্ছে।

উল্লেখ্য, মোদীর শাসকালের শেষ দিকে সরকারি কর্মচারীদের জন্যে বড় কিছু ঘোষণা করতে পারে বলে ইঙ্গিত মিলেছিল। কিন্তু শেষমেশ কিছুই মেলেনি। যাতে সরকারি কর্মীদের কার্যত আশাভঙ্গ হয়। এরপর নির্বাচনে কমিশনের আচরণ বিধি লঙ্ঘন হয়ে যাওয়াতে কিছগুই ঘোষণা করা যায়নি। কিন্তু ভোট মিটলেই সরকারি কর্মীদের জন্যে বড় কিছু ঘোষণা মোদী সরকার করতে পারে বলে ইঙ্গিত দিয়েছিল বিজেপি। মনে করা হচ্ছে দ্বিতীয় বারে ক্ষমতায় মোদী ফিরলেই সপ্তম বেতন কমিশনের সুপারিশ মতো বড় ঘোষণা করা হতে পারে।

সূত্রের খবর, সরকারি কর্মীদের এখন মাত্র ১৮ হাজার টাকা নুন্যতম বেতন। কর্মীরা মনে করছেন, খুব দ্রুত সপ্তম বেতন কমিশনের সুপারিশকে মান্যতা দিতে পারে কেন্দ্রীয় সরকার। সুপারিশ মোতাবেক ৮০০০ টাকা বৃদ্ধি হতে পারে। যার ফলে সরকারি কর্মীদের নুন্যতম বেতন বৃদ্ধি একধাক্কা বেড়ে ২৬ হাজার টাকা হতে পারে। শুধু তাই নয়, সরকারি কর্মীদের ডিএ বৃদ্ধি নিয়েও বড়সড় সিদ্ধান্ত নিতে পারে অর্থমন্ত্রক। সিদ্ধান্ত চলতি মাসের শেষে নিলেও বাজেট এই বিষয়ে সরকারিভাবে ঘোষণা করা হতে পারে বলে আশায় বুক বাঁধছেন লক্ষাধিক সরকারি কর্মী।

প্রসঙ্গত, ক্ষমতায় ফিরে ইতিমধ্যে প্রথম ক্যাবিনেট বৈঠক করেছেন মোদী। যেখানে সমস্ত দফতরের মন্ত্রীরা উপস্থিত ছিল। প্রথম বৈঠকে ইস্তেহার অনুযায়ী কৃষকদের জন্যে একগুচ্ছ সিদ্ধান্ত নিয়েছে মোদী সরকার। শুধু কৃষকদের জন্যেই নয়, এবার দেশের জন্য আত্মবলিদান করা সামরিক ও আধাসামরিক বাহিনীর জওয়ানদের স্ত্রী এবং সন্তানদের বৃত্তি ও সহায়তার পরিমাণ বাড়িয়ে দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। ন্যাশনাল ডিফেন্স তহবিলের মাধ্যমে এই বৃত্তি প্রদান করা হতো শুধুই কেন্দ্রীয় বাহিনী ও সামরিক জওয়ানদের সন্তানদের। এবার রাজ্য পুলিশের জন্যও সেই সুবিধা প্রদান করা হবে। ২ হাজার টাকা থেকে বাড়িয়ে এই বৃত্তি অনুযায়ী পুত্রসন্তানদের দেওয়া হবে ২৫০০ টাকা। আর কন্যাসন্তানদের ২৩০০ থেকে বাড়িয়ে ৩ হাজার টাকা।

প্রথম ক্যাবিনেট বৈঠকে একগুচ্ছ এহেন সিদ্ধান্ত নেওয়ার পর আশার আলো আরও উজ্জ্বল হয়েছে কেন্দ্রীয় সরকারি কর্মীদের।