চেন্নাই: রোগীদের অশ্লীল ভিডিও রেকর্ড করার অভিযোগে গ্রেফতার করা হল এক ৬৪ বছরের চিকিৎসককে। চেন্নাইয়ের ঘটনা। ওই বৃদ্ধ চিকিৎসকের নাম এম শিবাগুরুনাথন। এক রোগী ও তাঁর স্বামী ওই চিকিৎসককে হাতেনাতে ধরে ফেলেন। এরপরই গত শুক্রবার তাকে গ্রেফতার করা হয়।

রোগীর স্বামী ধরে ফেলেন যে মহিলা রোগীদের অশ্লীল ভিডিও তৈরি করে ওই চিকিৎসক। স্ত্রী’র চিকিৎসা করাতে গিয়েই সতর্ক ওই ব্যক্তির নজরে এসে যায় বিষয়টি। তৎক্ষণাৎ ব্যবস্থা নেন তিনি।

বুকে ব্যাথা নিয়ে ওই চিকিৎসকের কাছে গিয়েছিলেন ওই মহিলা। সব শুনে তাঁর স্বামীকে বাইরে অপেক্ষা করতে বলে চিকিৎসক শিবাগুরুনাথন। তখনই সন্দেহ হয় মহিলার স্বামীর। তিনি জানালা দিয়ে ভিতরে চোখ রেখেছিলেন। সেটা বুজতে না পেরে চিকিৎসক মহিলা বলে পোশাক খুলে ফেলতে। আর মোবাইলটা ছিল চিকিৎসকের হাতেই।

সঙ্গে সঙ্গে ভিতরে ঢুকে যান তিনি। চিকিৎসককে জেরা করতে শুরু করেন। চাপে পড়ে ভিডিও ডিলিট করে দিতে চায় ওই ডাক্তার। এরপর ছুঁড়ে ফেলে দেয় মেমোরি কার্ডটি। পুলিশে অভিযোগ জানালে তদন্ত শুরু হয়। পুলিশ তল্লাশি চালিয়ে এরকম ৩০টি ভিডিওর খোঁজ পেয়েছে।

পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। শ্লীলতাহানি সহ একাধিক মামলা রুজু করা হয়েছে ওই চিকিৎসকের বিরুদ্ধে।