স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা : লোকসভা নির্বাচনের আগে থেকেই গেরুয়া শিবিরে যোগ দেবার হিড়িক পড়ে গিয়েছে। নির্বাচনে ফলাফল এ রাজ্যে সেই হিড়িকের গতি আরও বাড়িয়ে দিয়েছে। বিভিন্ন দল থেকে মানুষ যোগ দিচ্ছেন ভারতীয় জনতা পার্টিতে। রবিবার রাজ্যের ৬০,০০০ শিক্ষক যোগ দিলেন গেরুয়া শিবিরে। ৬০,০০০ শিক্ষক নিয়ে শিবিরে এদিন যোগ দেয় পশ্চিমবঙ্গ শিক্ষক ও শিক্ষা বিষয়ক কর্মচারী সমিতি, জানান সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক সুব্রত চক্রবর্তী।

এদিন কলকাতার জাতীয় গ্রন্থাগারের অডিটোরিয়াম হলে এক সাংবাদিক বৈঠকের মাধ্যমে তাঁরা বিজেপিতে যোগ দান করেন প্রকাশ্যে। শিক্ষাক্ষেত্রে নৈরাজ্যবাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতেই তাদের এহেন সিদ্ধান্ত বলে জানা গিয়েছে। সুব্রতবাবু এদিন বলেন, “রাজ্যে যখন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়য়ের সরকার এসেছিল, তখন উন্নয়নের কথা বলেছিলেন তিনি। কিন্তু আদতে দেখা গেল শিক্ষাক্ষেত্রে উন্নয়ন তো দূর, বরং শিক্ষাক্ষেত্র ভরে গিয়েছে চরম বিশৃঙ্খলায়। তার প্রতিবাদও সঠিকভাবে করা যাচ্ছেনা। তাই শিক্ষাক্ষেত্রে নৈরাজ্যের বিরুদ্ধে সঠিকভাবে প্রতিবাদ জানাতে তাঁরা বিজেপিতে যোগ দিলেন। প্রতিবাদ জানানোর একমাত্র মুক্ত মঞ্চ হল ভারতীয় জনতা পার্টির মঞ্চ।“

এদিন অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ। তাঁর উপস্থিতিতেই অনুষ্ঠান মঞ্চে ভারতীয় জনতা পার্টিতে যোগ দেন শিক্ষা সংগঠনটি। মঞ্চে দাঁড়িয়ে সংগঠনের কর্মকর্তাদের হাতে বিজেপির দলীয় পতাকা তুলে দেন তিনি। মঞ্চ থেকে দিলীপ বাবু বলেন, “এই মঞ্চ থেকে শিক্ষাক্ষেত্রের যে কোন রকম অন্যায়ের প্রতিবাদ করা যাবে নির্ভয়ে।“

বিজেপিতে যোগ দিতে পেরে খুশি সংগঠনের সদস্যরাও। এদিন মঞ্চে একই সাথে বিজেপিতে যোগ দেয় পশ্চিমবঙ্গ মধ্যশিক্ষা পর্ষদ এমপ্লয়িজ ইউনিয়ন। এই সংগঠনেও সদস্য সংখ্যা প্রায় ৪০০ জন। প্রায় সাড়ে আটশো সদস্যের উপস্থিতিতে বিজেপিতে যোগ দেয় সংগঠন দুটি।