শ্রীনগর: দেশ জুড়ে করোনা ভাইরাস আতঙ্ক। ইতিমধ্যে আক্রান্তের সংখ্যা পৌঁছে গিয়েছে তিন হাজারের কাছে। এছাড়াও মারা গিয়েছেন আটষট্টি জন। তারই মাঝে জম্মু ও কাশ্মীরে সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপ রুখতে ব্যস্ত ভারতীয় সেনা। কয়েকজন জঙ্গি উপত্যকায় হামলা চালানর ছক করার খবর পেয়েই বিশেষ অভিজান চালানো হয়েছিল সেনার তরফে। তারপরেই কুলগামে সেনাদের সঙ্গে সংঘর্ষে মারা যায় ৪ জঙ্গি।

গোয়েন্দা সূত্রে জানা গিয়েছে ওই এলাকাতে আরও কিছু জঙ্গি আত্মগোপন করে রয়েছে। তবে তাদের সন্ধানে চলছে চিরুনি তল্লাশি। সারা দেশের মত করোনা থাবা বসিয়েছে জম্মু ও কাশ্মীরেও। লক ডাউনের জেরে সেখানেও গৃহবন্দি হয়ে রয়েছে সাধারণ মানুষেরা। তারই মাঝে জঙ্গি কার্যকলাপের খবর পেয়েই পদক্ষেপ গ্রহন করেছিল ভারতীয় সেনারা। আর তাতেই মারা যায় ৪ জন।

জম্মু ও কাশ্মীর পুলিশের এক আধিকারিক জানিয়েছেন বিশেষ সুত্র মারফত খবর পেয়েই এই অভিযান চালানো হয়েছিল। তবে বেশ কিছু জঙ্গি এখনও ওই অঞ্চলে আত্মগোপন করে রয়েছে। এই পরিস্থিতির মধ্যেই মাঝে মাঝেই কানে আসছে গুলির শব্দ। তাই এই অভিযান এখনও চলবে বলেই মনে করা হচ্ছে। এর আগে জম্মু ও কাশ্মীর পুলিশের তরফ থেকে তাদের সোশ্যাল মিডিয়াতে জানানো হয়েছিল সন্ত্রাসবাদীদের আটক হওয়ার খবর। কিন্তু তারপরে সামনে আসে চার জঙ্গির নিকেশ হওয়ার বিষয়টি।

সেনাবাহিনী এবং সেখানকার পুলিশের যৌথ অভিজানে ওই চার জঙ্গিকে নিকেশ করা হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। যেহেতু মনে করা হচ্ছে ওই জায়গাতে আরও কিছু জঙ্গি লুকিয়ে রয়েছে সেই কারণে জায়গাটি ঘিরে রাখা হয়েছে এছাড়াও চলছে তল্লাশি যাতে কোনভাবে তারা পালিয়ে না যেতে পারে। তবে যে কোন ভাবেই সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপ রুখতে বদ্ধপরিকর প্রশাসন।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

Tree-bute: রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও