লঞ্চ করার পর এই নিয়ে তিনবার ফ্ল্যাশ সেল দিল জিও ২৷ বৃহস্পতিবার জিও ২’র থার্ড ফ্ল্যাশ সেল শুরু হয় দুপুর ১২টা থেকে৷ প্রথম দু’বারের মতো এবারও ফ্ল্যাশ সেল বুকিং ওপেন হতেই ঝাঁপিয়ে পড়েন গ্রাহকরা৷ আগস্টের ১৬ তারিখ প্রথমবার জিও ২’র ফ্ল্যাশ সেল বুকিং হয়েছিল৷

সেল শুরুর পর কয়েক মুহূর্তের অপেক্ষা৷ তারপরই আউট অফ স্টক হয়ে যায় হ্যান্ডসেটটি৷ এরপরই গত বৃহস্পতিবার আরও একবার এই সেল দেওয়া হয়৷ কিন্তু তবু হতাশ হতে হয়েছিল বহু উৎসুক গ্রাহককে৷ চেষ্টা করেও বুকিং করতে পারেননি সাধের মোবাইলটি৷

আরও পড়ুন: ‘ভালবাসার জন্য মানুষ কতো দূর যেতে পারে’ নমস্তে ইংল্যান্ড ট্রেলারে

এরপরই আজ বৃহস্পতিবার আরও একবার ফ্ল্যাশ সেল দেওয়া হয় জিও ২৷ ইউজার ফ্রেন্ডলি এই মোবাইল ফোনটি৷ দাম মাত্র ২, ৯৯৯ টাকা৷ দেখতে অনেকটা নোকিয়া আশা কিংবা ব্ল্যাকবেরির মতো৷ কোয়ার্তি কি প্যাড৷ ৫১২ এমবি র‍্যাম, ৪ জিবি ইন্টারনাল স্টোরেজ যা ১২৮জিবি পর্যন্ত এক্সপ্যান্ডেবল৷

আরও পড়ুন: দেবের নায়িকার আত্মহত্যায় শোকস্তব্ধ টলিউড

২ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা৷ ২০০০ এমএএইচ ব্যাটারি৷ এফএম রেডিও৷ হোয়াটসঅ্যাপ, ফেসবুক, ইউটিউব ব্যবহারের সুবিধাও রয়েছে৷ কানেকটিভিটির জন্য ফোর জি VoLTEE, VO ওয়াই-ফাই, ব্লুটুথ, জিপিএসও রয়েছে৷ জিও টু’তে আপনি তিনটি রিচার্জের অপশন পাবেন৷ ৪৯ টাকা, ৯৯ টাকা ও ১৫৩ টাকা৷ ফোনটি অর্ডারের পর পাঁচ থেকে সাতদিন অপেক্ষা করতে হবে আপনাকে৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.