কেন্দ্রপাড়া: ৩৫ বছরের ক্যান্সার আক্রান্ত এক মহিলাকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে দুই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করল পুলিশ। শুক্রবার এ ঘটনা ঘটেছে ওড়িশার কেন্দ্রপাড়াতে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, বুধবার রাতে ৩৫ বছরের ক্যান্সার আক্রান্ত ওই মহিলা নিজের রোগ সারানোর জন্য শিব মন্দিরে উপবাস পালন করছিল। সেই সময় তিন দুষ্কৃতী তাঁকে একা পেয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে।

রাজনগর পুলিশ স্টেশনের ইন্সপেক্টর তপন কুমার নায়ক জানান, বিপদে পড়েছেন বুঝতে পেরেই নিজেকে বাঁচাতে আর্তনাদ শুরু করেন ওই মহিলা। আর তারপরেই বিপদ বুঝে পালায় ওই তিন দুষ্কৃতী। পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, এই ঘটনায় তিন অভিযুক্তের মধ্যে দুই ব্যক্তিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অন্য এক ব্যক্তি পালিয়ে গিয়েছেন।

এ ঘটনায় ফের একবার প্রশ্নের মুখে পড়েছে মেয়েদের নিরাপত্তা। সারা দেশ জুড়ে মেয়েরা যে মোটেই নিরাপদ নয়, তাই যেন আরও একবার বেয়াব্রু হয়ে পড়েছে। প্রায় প্রতিদিনই ধর্ষণের খবরে শিরোনামে থাকছে যোগীরাজ্য উত্তরপ্রদেশ। উন্নাও কাণ্ডে মর্মান্তিক ঘটনার পরেও সে রাজ্যে বিন্দুমাত্র পরিবর্তন হয়নি অবস্থা।

অন্যদিকে দিল্লিতে নির্ভয়া গণধর্ষণ কাণ্ডে দোষীদের ফাঁসির দিন নির্ধারিত হয়েছে আগামী ৩ মার্চ। ওই দিন সকাল ৬টায় চারজনেরই ফাঁসি হবে বলে জানা গিয়েছে। এর আগেও একাধিকবার নির্ভয়ার ফাঁসির দিন নির্ধারিত হয়েও ফের বাতিল হয়ে গিয়েছে। ১ ফেব্রুয়ারি ফাঁসি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু ৩১ জানুয়ারি সেই ফাঁসি স্থগিত হয়ে যায়।তার আগে ২২ জানুয়ারি ফাঁসি হওয়ার কথা ছিল। তবে রাষ্ট্রপতির দোষীদের আর্জি খারিজ করার পরই ফের ফাঁসির দিন ঘোষণা করা হয়।

২০১২-তে এক ভয়াবহ ঘটনায় দিল্লিতে মৃত্যু হয়েছিল এক তরুণীর। দেশের মানুষ তাঁকে নাম দিয়েছিল নির্ভয়া। ফাঁকা বাসে নৃশংস গণধর্ষণের শিকার হন ওই তরুণী।

বিচারের আশায় দিনের পর দিন ঘুরে বেড়াতে হয়েছে তাঁর মা আশা দেবীকে। অনেক চোখের জল ফেলেছেন তিনি। তবু হাল ছাড়েননি নির্ভয়ার বাবা-মা। মেয়ের আত্মা যাতে শান্তি পায়, তার জন্য দোষীদের শাস্তি চেয়েছেন বারবার।