স্টাফ রিপোর্টার, বর্ধমান: তরুণীকে ধর্ষণের ঘটনায় এক যুবকের ১২ বছরের কারাদণ্ড এবং ৫০ হাজার টাকা জরিমানা এবং সেই টাকা অনাদায়ে আরও ১ বছর কারাদন্ডের নির্দেশ দিলেন বর্ধমানের দ্বিতীয় ফার্স্ট ট্র‌্যাক কোর্টের বিচারক অর্জুন মুখোপাধ্যায়।

জরিমানার অর্থ নির্যাতিতাকে দেওয়ার নির্দেশ দেন বিচারক। দোষী সাব্যস্ত ওই যুবকের নাম শেখ সাবিরউদ্দিন ওরফে ছিপল। ভাতার থানার মাহাতা গ্রামের মাঝেরপাড়ায় তার বাড়ি। গ্রেফতার হওয়ার পর থেকে সে জেলেই রয়েছে। বৃহস্পতিবার তার সাজা ঘোষণা হয়। কেসের সরকারি আইনজীবী হরিদাস মুখোপাধ্যায় বলেন, ধর্ষণের ধারায় অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে। এই ধারায় অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় বিচারক ১২ বছরের সাজা দিয়েছেন।

যদিও এদিন নিজেকে নির্দোষ বলে বিচারকের কাছে দাবি জানিয়েছে সাবিরউদ্দিন। তার আইনজীবী মুক্তিপদ রায় জানিয়েছেন, এই রায়ের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে আপিল করা হবে।

সরকারি আইনজীবী জানিয়েছেন, ঘটনাটি ঘটে গত বছরের ২৮ সেপ্টেম্বর। ঘটনার দিন মাহাতা গ্রামের ওই যুবতী মামারবাড়ির ঘরের মেঝেয় শুয়েছিলেন। ঘরে খাটে শুয়েছিলেন তরুণীর মা সহ দু’জন। ঘরের দরজা ঠিকমতো বন্ধ ছিল না। গভীর রাতে দরজা খুলে ভিতরে ঢুকে মুখ চেপে ধরে যুবতীকে প্রতিবেশী সাবিরউদ্দিন ধর্ষণ করে। যুবতীর আর্তনাদে ঘরের লোকজনের ঘুম ভেঙে যায়।

যুবতীর মা চিৎকার শুরু করলে সাবিরউদ্দিন পালিয়ে যায়। ঘটনার বিষয়ে যুবতীর মামা পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেন। তার ভিত্তিতে ধর্ষণের মামলা রুজু হয়। ৩০ সেপ্টেম্বর ভোরে মাহাতা বাসস্ট্যান্ড থেকে পুলিস সাবিরউদ্দিনকে ধরে। তাকে ২ দিন হেফাজতে নেয়। ধৃতের মেডিকেল পরীক্ষা করা হয়। যুবতীরও মেডিকেল পরীক্ষা করায় পুলিশ। তাঁর গোপন জবানবন্দিও নথিভূক্ত করায় পুলিশ।

নির্ধারিত সময়ের মধ্যে তদন্ত সম্পূর্ণ করে চার্জশিট পেশ করেন তদন্তকারী অফিসার। মামলায় ১৩ জন সাক্ষ্য দিয়েছেন। সরকারি আইনজীবী বলেন, যুবতী ও ধৃতের মেডিকেল পরীক্ষায় ধর্ষণের প্রমাণ মিলেছে। মেডিকেল পরীক্ষা করা বর্ধমান মেডিক্যাল কলেজের ফরেন্সিক স্টেট মেডিসিন বিভাগের দুই চিকিৎসক আদালতে সাক্ষ্য দিয়ে ধর্ষণের কথা জানিয়েছেন। এদিকে, বৃহস্পতিবার সাজা ঘোষণার পর আদালতে নিয়ে যাবার পথে সাবিরউদ্দিন জানিয়েছেন, ওই যুবতীর সঙ্গে তাঁর ২ বছর ধরে প্রেম চলছিল। তাঁর পাশাপাশি অন্য পুরুষের সঙ্গেও তাঁর সম্পর্ক ছিল। তাকে ফাঁসিয়ে দেওয়া হয়েছে মিথ্যা অভিযোগে। সাবির উদ্দিন জানিয়েছেন, এই সাজার বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতে তিনি আপিল করবেন।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

Tree-bute: রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও