কলকাতা: শহরে বিভিন্ন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে পালিত হয়েছে ৭১তম প্রজাতন্ত্র দিবস৷ কিন্তু শহর এদিন প্রতিবাদের মুখও দেখল৷ নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন ও এনআরসি-র প্রতিবাদে ১১ কিমি দীর্ঘ মানববন্ধন তৈরি করে শহরের হাজার হাজার মানুষ৷ মানববন্ধনে সামিল হয়েছিলেন হিন্দু-মুসলিম-শিখ-খ্রিস্টান৷ এক কথায় সর্ব ধর্মের মানুষ৷

এদিন শ্যামবাজার থেকে শুরু হয়ে পার্ক সার্কাস সেভেন পয়েন্ট ক্রসিং , মল্লিক বাজার, রিপন স্ট্রিট , নোনাপুকুর, রাজাবাজার এবং মানিকতলা হয়ে গোলপার্কে শেষ হয় এই মানববন্ধন৷ ইউনাইটেড ইন্টারফেথ ফাউন্ডেশান অফ ইন্ডিয়ার পক্ষ থেকে এই মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়৷

উত্তর কলকাতার শ্যামবাজার থেকে দক্ষিণ কলকাতার গোল পার্ক পর্যন্ত মূল স্লোগান ছিল, ‘সারে জাঁহা সে আচ্ছা হিন্দুস্থান হামারা৷’ মানববন্ধনে যারা সামিল হয়েছিলেন,তাদের হাতে ছিল জাতীয় পতাকা৷ পাঠ করা হল সংবিধানের প্রস্তাবনা, অংশগ্রহণকারীরা শপথ নিলেন দেশের সংবিধানকে রক্ষা করবেন তারা৷ পাশাপাশি দেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিও তারা রক্ষা করবেন৷

২৬ জানুয়ারি বেলা বাড়তেই ভিড় জমছিল পার্ক সার্কাস সেভেন পয়েন্ট ক্রসিংয়ে৷ ৭১ তম প্রজাতন্ত্র দিবসে গোলপার্ক থেকে পার্ক সার্কাস পর্যন্ত মানবন্ধন করলেন সাধারণ নাগরিকেরা৷ হাতে হাত রেখে প্রতিজ্ঞা সকলের, জাতি ধর্ম নির্বিশেষে একসঙ্গে থাকতে হবে৷ ভারত ভেঙে ভাগ করা যাবে না৷ মানবন্ধনের ফলে শহরে একটা অংশে কিছুক্ষণের জন্য যান চলাচল বন্ধ যায়৷ মানবন্ধনে সরাসরি মুখে কিছু না বলে নীরবে CAA,NRC এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানালেন শহরের সাধারণ মানুষ৷