রাজ্যে করোনা আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হল আরও একজনের। নয়াবাদের প্রৌড়ের চিকিৎসা চলছিল পিয়ারলেস হাসপাতালে। বুধবার তাঁর মৃত্যু হয়েছে।

রাজ্যে আগেই তিনজনের মৃত্যু হয়েছে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে। এবার নয়াবাদের প্রৌড়ের মৃত্যু হল। ইনি বেশ কিছুদিন ধরেই চিকিৎসাধীন ছিলেন। এগরার বিয়ে বাড়িতে গিয়ে আক্রান্ত হন তিনি।

গত শনিবার রাতে হঠাত করেই ওই বৃদ্ধের শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটে। শনিবার রাত থেকে অবস্থার অবনতি হতে থাকে। সূত্রের খবর, এই মুহূর্তে সঙ্কটজনক অবস্থায় ভেন্টিলেশনে রয়েছেন ওই বৃদ্ধ। হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, শনিবার রাত থেকে হঠাত করেই রেচন প্রক্রিয়ার সমস্যা শুরু হয়।

কিছুদিন আগে জ্বর এবং শ্বাসকষ্ট নিয়েই বাইপাসের ধারে বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হয় তাঁকে। ডাক্তারদের সন্দেহ হওয়াতে করোনা ভাইরাসের পরীক্ষা করা হয়। নাইসেডে করোনা পরীক্ষায় ওই ব্যক্তির রিপোর্ট পজিটিভ আসে। তবে এই ব্যক্তির বিদেশ ভ্রমণের কোনও রেকর্ড নেই। কিন্তু তিনি মেদিনীপুর তার এক আত্মীয় বাড়ির অনুষ্ঠানে যোগ দিয়েছিলেন। ওই অনুষ্ঠানে হাজির ছিলেন বেশ কয়েকজন বিদেশি অতিথি। ইতিমধ্যে ওই বিয়ে বাড়িতে আমন্ত্রিত সবার স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হচ্ছে।