নয়াদিল্লি: কিংস কাপের দল বাছাইয়ে নেমে ছাঁটাইয়ের কাজ শুরু করে দিয়েছিলেন আগেই। রবিবার থাইল্যান্ড উড়ে যাওয়ার আগে আরও দুই ফুটবলারকে চূড়ান্ত ২৩ জনের তালিকা থেকে বাদ দিলেন ভারতের নবনিযুক্ত কোচ ইগর স্টিমাচ। ২০১৮-১৯ আই লিগে লাল-হলুদ জার্সি গায়ে সর্বোচ্চ স্কোরার জবি জাস্টিন ও বেঙ্গালুরু এফসি ডিফেন্ডার নিশু কুমার বাদ শেষ মুহূর্তে বাদ পড়লেন কিংস কাপের জন্য ক্রোট কোচের চূড়ান্ত তালিকা থেকে।

স্টিমাচের ২৩ জনের দলে থেকে থেকে গেলেন রাহুল ভেকে, ব্র্যান্ডন ফার্নান্ডেজ, মাইকেল সুসাইরাজ, আব্দুল সাহাল এবং অনুর্ধ্ব-১৭ বিশ্বকাপে ভারতীয় দলকে নেতৃত্ব দেওয়া অমরজিৎ সিং। ২০১২ পর জাতীয় দলে জায়গা পেলেন এফসি পুনে সিটির ডিফেন্সিভ মিডফিল্ডার আদিল খান। চূড়ান্ত তালিকা থেকে জবি ও নিশু কুমারের বাদ যাওয়া প্রসঙ্গে সুনীলদের কোচ জানান, ‘বাকি ২টি স্লটের জন্য আমাদের কঠিন একটা সিদ্ধান্ত নিতে হত। তাই নিশু কুমার ও জবি জাস্টিনকে ছেড়ে দিচ্ছি আমরা।’

আরও পড়ুন: ড্রেসিংরুমকে ঐক্যবদ্ধ করেছেন ক্লপ, ইউরোপ সেরা হয়ে জানালেন অধিনায়ক হেন্ডারসন

দিল্লিতে কিংস কাপের জন্য প্রস্তুতি শিবির নিয়ে খুশি স্টিমাচ থাইল্যান্ড উড়ে যাওয়ার আগে জানান, ‘দিল্লিতে আমরা আমাদের কাজ সম্পূর্ণ করেছি। প্রত্যেকের সহযোগীতা ও অবদান আমাদের সাহায্য করেছে।’ একইসঙ্গে অনুশীলনের জন্য পর্যাপ্ত সুযোগ-সুবিধা পাওয়ার কারণে স্টিমাচ ধন্যবাদ জানান স্পোর্টস অথরিটিকে। ক্রোয়েশিয়ান কোচ ধন্যবাদ জানান তাঁর ফুটবলার, সংবাদমাধ্যম এবং সর্বোপরি দেশের ফুটবল ফেডারেশনকে।

আরও পড়ুন: সেরেনা-ওসাকার বিদায়, ফরাসি ওপেনে একইদিনে জোড়া নক্ষত্রপতন

প্রস্তুতি শিবির শেষে ডিফেন্ডার সন্দেশ ঝিঙ্গান জানান, ‘প্রত্যেকেই এই শিবির চুটিয়ে উপভোগ করেছি। এখন আমরা মাঠে নিজেদের সেরাটা দিতে মুখিয়ে। নতুন কোচ আমাদের নতুন একটা সিস্টেমে গড়ে তোলার চেষ্টা করছেন। আক্রমণাত্মক ফুটবলের চেয়েও আমরা এখন অনেক বেশি বল ধরে খেলার চেষ্টা করছি। নতুন কোচের অধীনে আমরা সাফল্যের জন্য ক্ষুধার্ত।’

আরও পড়ুন: প্যারিসের হোটেলে নেইমারের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ

কিংস কাপ খেলতে রবিবার দেশ ছাড়ল ভারতীয় ফুটবল দল। সোমবার সকালে ব্যাংকক থেকে বুরিরামের উদ্দেশ্যে রওনা দেবে তাঁরা। ৫ জুন কুরাকাওয়ের বিরুদ্ধে কিংস কাপের প্রথম ম্যাচে মাঠে নামবে মেন ইন ব্লু। উল্লেখ্য, চূড়ান্ত দল গঠনের লক্ষ্যে গত সপ্তাহে বিশাল কাইথ, জারমানপ্রীত সিং, নন্দ কুমার, রেডিম ট্যাং, বিক্রমজিৎ সিং এবং সুমিত পাসিকে বাদ দিয়েছিলেন ইগর স্টিমাচ।