হ্যামিলটন: রোহিত শর্মা চোট পেয়ে সফর থেকে ছিটকে গিয়েছেন। সুতরাং নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে টেস্ট সিরিজে ময়াঙ্ক আগরওয়ালের সঙ্গে ওপেন করতে নামবেন নতুন কেউ। স্কোয়াডে রয়েছেন দুই তরুণ ওপেনার পৃথ্বী শ ও শুভমন গিল। দু’জনের মধ্যে কোনও একজনের ভাগ্যে ছিঁড়বে প্রথম একাদশের শিকে। ছন্দে রয়েছেন দুই তরুণ তুর্কিই।

পৃথ্বীর আগ্রাসন বনাম শুভমনের ধৈর্য্যের লড়াইয়ে শেষমেশ কে জয়ী হয় সেটা জানতে ২১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে ক্রিকেটপ্রেমীদের। আপাতত প্লেয়িং ইলেভেনে ঢোকার ট্রায়ালে একে অপরকে টেক্কা দিতে ব্যর্থ পৃথ্বী ও গিল।

নিউজিল্যান্ড একাদশের বিরুদ্ধে অনুশীলন ম্যাচে খাতা খুলতে পারলেন না দুই তরুণ ক্রিকেটারই। দ্বিতীয় ইনিংসে আরও একবার নিজেদের প্রমাণ করার সুযোগ পাবেন পৃথ্বী ও গিল। আপাতত প্রথম ইনিংসে ব্যাট হাতে ব্যর্থ দু’জনেই। যদিও নির্ভরযোগ্য ওপেনার ময়াঙ্ক আগরওয়ালও ব্যাট হাতে সফল হননি প্রস্তুতি ম্যাচের প্রথম ইনিংসে।

ওয়ান ডে সিরিজের তিনটি ম্যাচেই নজর কাড়তে ব্যর্থ হয়েছেন আগরওয়াল। এবার প্র্যাক্টিস ম্যাচে মাত্র ১ রান করে আউট হয়ে বসেন তিনি। ‘এ’ দলের হয়ে শেষ ম্যাচে অনবদ্য শতরান করলেও অজিঙ্কা রাহানে অনুশীলন ম্যাচে আউট হন ১৮ রান করে। মাত্র ৩৮ রানে ৪ উইকেট হারানো ভারতীয় দলকে নির্ভরতা দেয় চেতেশ্বর পূজারা ও হনুমা বিহারীর ব্যাট।

পঞ্চম উইকেটের জুটিতে পূজারা ও বিহারী ১৯৫ রান যোগ করেন। বিহারী ব্যক্তিগত শতরান পূর্ণ করলেও সেঞ্চুরির দোরগোড়া থেকে ফিরতে হয় পূজারাকে। চেতেশ্বর আউট হন ৯৩ রান করে। ২১১ বলের ধৈর্যশীল ইনিংসে ১১টি চার ও ১টি ছক্কা মারেন পূজার। বিহারী ক্রিজ ছাড়েন ১০১ রান করে। ১৮২ বলেন ইনিংসে তিনি ১০টি চার ও ৩টি ছক্কা মেরেছেন।

দু’অঙ্কের রানে পৌঁছতে পারেননি ভারতের আর কোনও ব্যাটসম্যানই। ঋষভ পন্ত ৭ রান করে আউট হন। খাতা খুলতে পারেননি অশ্বিন ও ঋদ্ধিমান। ৮ রান করে আউট হয়েছেন জাদেজা।৯ রান করে অপরাজিত থাকেন উমেশ যাদব। ভারত প্রথম ইনিংসে অল-আউট হয়ে যায় ২৬৩ রানে।

প্রশ্ন অনেক: দ্বিতীয় পর্ব