বেঙ্গালুরু: জল্পনা সত্যি করে আইপিএলে তাঁর পুরনো ফ্র্যাঞ্চাইজি রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরে যোগদান করতে চলেছেন প্রোটিয়া স্পিডস্টার ডেল স্টেইন। প্রথম ছ’ম্যাচের সবক’টিতে হেরে লিগ টেবিলে একদম শেষে অবস্থান করছে বিরাটের নেতৃত্বাধীন আরসিবি। অজি পেসার ন্যাথন কুল্টার-নাইল চোটের কবলে পড়ায় লিগের বাকি ম্যাচগুলোর জন্য পরিবর্ত খুঁজে নিল ব্যাঙ্গালোর টিম ম্যানেজমেন্ট।

গত বৃহস্পতিবার সোশ্যাল সাইটে স্টেইনের একটি পোস্ট উসকে দিয়েছিল জল্পনা। পাসপোর্ট এবং ভিসার ছবি পোস্ট করে সোশ্যাল সাইটে জোরে বোলার লেখেন, ‘ছোট্ট সারপ্রাইস।’ পরে যদিও সেই পোস্টটি মুছে দেন প্রোটিয়া পেসার। তবে জল্পনা সত্যি করে কুল্টার-নাইলের পরিবর্ত হিসেবে বিরাটের দলে তাঁর যোগদানের বিষয়টি নিশ্চিত করেছে ইএসপিএনের স্পোর্টস নিউজ ওয়েবসাইট।

আরও পড়ুন: বিশ্বকাপে গেইলদের নতুন কোচ

২০০৮-১১ প্রথম চার মরশুমে আরসিবির জার্সি গায়ে খেলেছিলেন স্টেইন। সাফল্যের সঙ্গেই ৪০ ম্যাচে ৪১ উইকেট সংগ্রহ করার পর বাসা বদল করে প্রোটিয়া পেসার যোগদান করেন হায়দরাবাদ ফ্র্যাঞ্চাইজিতে। সেখানেও চারটি মরশুমে নিজের নামের প্রতি সুবিচার করেন ৪৩৯ টেস্ট উইকেটের মালিক। এরপর ২০১৬ গুজরাত লায়ন্সের হয়ে মাত্র একটি ম্যাচ খেলে চোটের কারণে দেশে ফিরতে হয়েছিল তাঁকে।

আরও পড়ুন: ইউরোপা লিগের শেষ আটে জয় আর্সেনালের

২০১৭ চোটের কারণে আইপিএলে বল হাতে অ্যাকশন থেকে বিরত থাকার পর ২০১৮ কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজি তাঁকে নিয়ে আগ্রহ দেখায়নি। এরপর ডিসেম্বরে চলতি আইপিএলের নিলামেও অবিক্রিত রয়ে যান বিশ্বের অন্যতম সেরা ফাস্ট বোলার। কিন্তু আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে তাঁর সাম্প্রতিক ফর্ম তাঁকে ফিরিয়ে আনল ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেট লিগে। পিঠের চোটে কাবু কুল্টার-নাইল দেশে ফিরে যাওয়ার কারণে পুরনো দলের হয়ে ফের মাঠে নামতে দেখা যাবে তাঁকে।

লিগ টেবিলে বিরাটের দল যে অবস্থাতেই শেষ করুক না কেন, বলাই বাহুল্য স্টেইনের উপস্থিতি বাকি ম্যাচগুলোর জন্য আরসিবির বোলিং বিভাগে শক্তি বৃদ্ধি করবে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.