ধর্মঘটের দ্বিতীয় দিনে বাংলাদেশে বিরোধী দলের সঙ্গে সংঘর্ষে মৃত্যু হল সাতজনের৷এদিন সংঘর্ষে আহত হয়েছেন আরও ৫০ জন৷বৃহস্পতিবার সন্ধে ছ’টা পর্যন্ত অবরোধ কর্মসূচী বাড়িয়েছে বিএনপি৷বুধবার দক্ষিণ পশ্চিমে সীমান্তবর্তী জেলা সাতক্ষীরায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে জামায়াতের এক কর্মীর মৃত্যু হয়েছে বলে জানা গিয়েছে৷চট্টগ্রামের পটিয়ায় অবরোধকারী সমর্থকদের হামলায় টেম্পো উল্টে চালকের মৃত্যু হয়৷ অবরোধের দ্বিতীয়দিনে বন্দরনগরী চট্টগ্রাম এবং বরিশাল সহ বিভিন্ন জায়গা থেকে বিরোধীজোটের নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষের খবর পাওয়া গিয়েছে।  চট্টগ্রামে অবরোধকারী সমর্থকরা একটি অটোরিক্শায় আগুন ধরিয়ে দেয়। অগ্নিদগ্ধ যাত্রীদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে৷ময়মনসিংহ, কিশোরগঞ্জ, চট্টগ্রামসহ বেশ কয়েকটি রেললাইন অবরোধের জেরে রেল চলাচল ব্যহত হয়েছে৷দূরপাল্লার বাস চলাচল বন্ধ রয়েছে। দু’দিনের অবরোধে এখনও পর্যন্ত ১৪ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গিয়েছে৷

 

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ