নয়াদিল্লি: ক্রমেই আতঙ্ক বাড়াচ্ছে করোনা ভাইরাস। বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে রীতিমত আতঙ্কের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে এই মারণ ভাইরাস। চিনে কিছুতেই নিয়ন্ত্রণে আনা যাচ্ছে না করানো বাইরাসকে। দিনের পর দিন বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। বিশ্বের বিভিন্ন রাষ্ট্রনেতারাও এ নিয়ে বেশ সন্ত্রস্ত।

তাই হ্যান্ডশেকেও এসেছে বাধা। সম্প্রতি জার্মানির চ্যান্সেলর অ্যাঞ্জেলা মর্কেলের একটি ভিডিও সোশ্যাল মাধ্যমে হ্যান্ডশেক বনধের ট্রেডমার্ক হয়ে উঠেছে। সবাই বলছেন হ্যান্ডশেক নয়, কাজ চালান ভারতীয় স্টাইল ‘নমস্তে’-র মাধ্যমে।

জানা গিয়েছে অ্যাঞ্জেলা মর্কেল সম্প্রতি বার্লিনে একটি মিটিংয়ে গিয়েছিলেন। সেখানেই দেখা গিয়েছে তিনি তারই ক্যাবিনেটের এক মন্ত্রীকে হ্যান্ডশেকের জন্য হাত বাড়িয়ে দেন। কিন্তু মন্ত্রীমশাই পত্রপাঠ নাকচ করে দিয়েছেন তা। প্রথমে চ্যান্সেলর একটু হকচকিয়ে গেলেও পড়ে বিষয়টি বুঝতে পেরে সামলে নিয়েছেন। পরে বিষয়টি নিয়ে নিজেরাই হাসি ঠাট্টায় মজেছেন।

সেই ভিডিও আপাতত করোনা ভাইরাসের প্রভাব এই হিসাবে সোশ্যাল মাধ্যমে ভাইরাল। নেটিজেনরা বলছেন, ভারতের মতো অভিবাদন আদান প্রদান হোক নমস্তের মাধ্যমে। যেমনটা করে থাকেন নরেন্দ্র মোদী কিংবা অমিতাভ বচ্চনের বিখ্যাত ভূমিকায় নমস্তে।

এদিকে দিল্লিতে এখনও পুরোপুরি শান্ত হয়নি দিল্লি। এরই মধ্যে করোনা ভাইরাসের আতঙ্কের থাবা বসেছে রাজধানীর উপর। ইতিমধ্যেই মারণ ভাইরাসে আক্রান্ত একজনের সন্ধান মিলেছে দিল্লিতে। এবার সেই ব্যক্তির সন্তানরা যে স্কুলে পড়ত সেই স্কুলও তিনদিনের জন্য বন্ধ রাখার নির্দেশিকা জারি হয়েছে।

ওই নির্দেশিকা জারি হওয়ার পরেই আতঙ্ক বেড়ে গিয়েছে আরও কয়েক গুণ। ভয়ের আহবে সেই স্কুলে নিজেদের বাচ্চাদেরকে পাঠাননি অভিভাবকরা। এরপরই আজ থেকে আগামী তিনদিন স্কুল বন্ধের ঘোষণা করা হয়।

.

প্রশ্ন অনেক: দ্বিতীয় পর্ব