সচিনের সঙ্গে আলিঙ্গন সৌরভের৷পাশে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷শুক্রবার ইডেনে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে ৷ ছবি: ফেসবুক

সেঞ্চুরির সেঞ্চুরির পর আইপিএল চলাকালীন মাস্টার ব্লাস্টারকে ইডেনে সংবর্ধনা নিজের হাতে দিয়েছিলেন৷ এবার ক্রিকেট ঈশ্বরের বিদায়ী টেস্টের শেষদিনেও তিনি যে আসবেন তা আগে থেকেই জানা ছিল৷ কিন্তু সেই শেষ দিন যে শুক্রবারই এত তাড়াতাড়ি চলে আসবে, তা হয়তো ভাবেননি অনেকেই৷ তাই হেলিকপ্টার দিয়ে গোলাপের পাপড়ি বৃষ্টি না হলেও, সচিনের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে কিন্তু যথাসময় হাজির রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ এদিন বিকেলে ওয়েস্ট ইন্ডিজের আটটা উইকেট পড়তেই মুখ্যমন্ত্রী বুঝে যান তৃতীয় দিনই খেলা শেষ হবে৷ সঙ্গে সঙ্গেই মুকুল রায়কে সঙ্গে নিয়ে নবান্ন থেকে ইডেনের উদ্দেশ্যে রওনা দেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ তিনি মাঠে ঢুকতেই সঞ্চালক রবি শাস্ত্রী ‘দিদি’ বলে তাঁকে সম্বোধন করার সঙ্গে সঙ্গেই হাত তালিতে ফেটে পড়ে গোটা ইডেন৷ প্রিন্স অফ ক্যালকাটা এবং সিএবি সভাপতি জগমোহন ডালমিয়াকে সঙ্গে নিয়ে সচিনের হাতে এক এক করে তুলে দিলেন স্মারক, তাঁর নিজের হাতে আঁকা ছবি এবং অন্যান্য আরও অনেক পুরস্কার৷ কিন্তু মাথায় পাগড়ি পড়ানোর সময় মুখ্যমন্ত্রী কিন্তু এগিয়ে দিলেন মাস্টার ব্লাস্টারের বন্ধু ও এক সময়ের ওপেনিং পার্টনার সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়কেই৷ বৃহস্পতিবার পাগড়ি মাথায় সচিন এবং সৌরভের আলিঙ্গনের এই ছবি কিন্তু সিএবির দেওয়ালে অবশ্যই জায়গা পাবে৷ সচিনের সারা মাঠ জুড়ে ভিকট্রি ল্যাপ দেখতে না পেয়ে দর্শকরা হতাশ হলেও, ওই একটা দৃশ্যেই শুক্রবার ইডেন শো সুপারহিট৷ মুখ্যমন্ত্রীও তখন আবেগের বশে বাংলাতেই সচিনকে বলে বসেন, ‘আবার এসো’!